দশমীর রাতে একই পরিবারে নৃশংস হত্যালীলা

বিজয়া দশমীতে যখন চলছে প্রতিমা বরণ, সিঁদুর খেলা, বিসর্জন তখনই মুর্শিদাবাদের জিয়াগঞ্জে নৃশংসভাবে খুন হলেন একই পরিবারের তিনজন। ঘটনার স্তম্ভিত এলাকাবাসী।

স্কুল শিক্ষক বন্ধু প্রকাশ পাল, তাঁর স্ত্রী বিউটি পাল ও তাঁদের বছর ছয়েকের ছেলে অঙ্গন পালকে নৃশংসভাবে খুন করা হয়। স্থানীয় সূত্রে খবর বিউটি সন্তানসম্ভাবা ছিলেন। জিয়াগঞ্জ থানার পুলিশ দেহগুলি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য লালবাগ মহকুমা হাসপাতালে পাঠিয়েছে।
কী কারণে এই খুন তা নিয়ে ধোঁয়াশায় তদন্তকারীরা। মুর্শিদাবাদের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তন্ময় সরকার জানান, খুনের কারণ স্পষ্ট নয়। তবে কোনও দামী অলঙ্কার বা টাকাপয়সা খোয়া যায়নি। পরিচিত কেউ এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত কি না, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলেও জানিয়েছেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার। ঘর থেকে একটি ধারালো অস্ত্র উদ্ধার হয়েছে বলে পুলিশ সূত্রে খবর। মৃত শিক্ষকের ফোনের কল লিস্ট চেক করে আততায়ীদের সন্ধান পাওয়ার চেষ্টা করছে পুলিশ। কারণ নিয়ে ধন্দে এলাকাবাসী থেকে আত্মীয়রাও।