“ভুল হয়েছে,” নতি স্বীকার প্রধান শিক্ষকের

সরকারি নির্দেশিকাকে উপেক্ষা করে স্কুল খোলা ভুল হয়েছে বলে স্বীকার করলেন প্রধান শিক্ষক। বুধবার পশ্চিম মেদিনীপুরের দাসপুরের হাটসরবেড়িয়া হাইস্কুলে দশম শ্রেণীর ক্লাস হয়। এই খবর সামনে আসতেই কড়া অবস্থান নেয় স্কুল শিক্ষা দফতর। প্রধান শিক্ষক বৃন্দাবন ঘটককে ইতিমধ্যেই শোকজ করা হয়েছে।

এই বিষয়ে তদন্ত শুরু করেছে জেলা স্কুল শিক্ষা দফতর। জেলার সহকারি ডি আই জানান, প্রধান শিক্ষককে প্রশ্ন করা হয়েছে নিয়ম বহির্ভূতভাবে তিনি কেন এই কাজ করলেন। একইসঙ্গে স্কুল পরিচালন সমিতির সভাপতিকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। গোটা বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হবে বলে জানিয়েছেন তদন্তকারীরা।

এদিন প্রধান শিক্ষক বৃন্দাবন ঘটক বলেন, “আমরা সাময়িকভাবে স্কুলে খুলেছিলাম। গোটা ঘটনার দায় আমি নিচ্ছি। ১-২ ঘণ্টার জন্য স্কুল খুললেও তা ভুল হয়েছে।” তাঁর আরও বক্তব্য, “ছাত্র-ছাত্রীদের শুধু অনলাইনে শেখালে হবে না। ওরা অনেক পিছিয়ে পড়ছে। বিকল্প পথ ভাবতে হবে।”