দার্জিলিং গিয়ে ভুলেও এই কাজটি করবেন না! গুনতে হবে মোটা অঙ্কের জরিমানা

দার্জিলিংয়ে প্রকাশ্যে ধূমপান ও থুতু ফেলার উপর আগে থেকেই নিষেধাজ্ঞা ছিলই। কিন্তু নিয়ম না মানলে জরিমানা দিতে হত না। ফলে নিষেধাজ্ঞা থাকা সত্ত্বেও প্রকাশ্যে ধূমপান বা থুতু ফেলা সম্পূর্ণরূপে বন্ধ করা যায়নি। 

দার্জিলিং (Darjeeling) বেড়াতে গেলে এখন থেকে এই কাজটি ভুল করেও আর করবেন না। যদি ধরা পড়েন, তাহলে গুনতে হবে মোটা অঙ্কের জরিমানা (fine) । পাহাড়ে এবার প্রকাশ্যে ধূমপান (Smoking) পুরোপুরি নিষিদ্ধ। শুধু তাই নয়, প্রকাশ্যে থুতু ফেললেও রেহাই মিলবে না ! স্রেফ স্থানীয় বাসিন্দারা নন, ৫০০ জরিমানা (fine) দিতে হবে পর্যটকদেরও। দার্জিলিংকে (darjeeling) দূষণমূক্ত করতে কড়া পদক্ষেপ করল পুরসভা (Municipality)।

দূষণ বেড়েছে দার্জিলিংয়ে। গত ৯ নভেম্বর থেকে শৈলশহরের বিভিন্ন প্রান্তে পুরসভার আধিকারিকরা ঘুরে বেড়াচ্ছেন। প্রকাশ্যে কোনও ব্যক্তিকে ধূমপান, এমনকী থুতু ফেলতে দেখলেই জরিমানা আদায় করছেন তাঁরা। দার্জিলিং পুরসভার তরফে জানানো হয়েছে, এবার থেকে প্রকাশ্যে ধূমপান করলেই ৫০০ টাকা জরিমানা দিতে হবে। দিতে হবে থুতু ফেললেও জরিমানা ৫০০ ! ছাড় পাবেন না পর্যটকরাও।

উল্লেখ্য,দার্জিলিংয়ে প্রকাশ্যে ধূমপান ও থুতু ফেলার উপর আগে থেকেই নিষেধাজ্ঞা ছিলই। কিন্তু নিয়ম না মানলে জরিমানা দিতে হত না। ফলে নিষেধাজ্ঞা থাকা সত্ত্বেও প্রকাশ্যে ধূমপান বা থুতু ফেলা সম্পূর্ণরূপে বন্ধ করা যায়নি। পুরসভার তরফে সকলকে সচেতন করে বলা হয়েছে। নিজে প্রকাশ্যে ধূমপান করবেন না। থুতু ফেলবেন না। অন্যদেরও এই কাজ করতে দেবেন না। পুরসভার তরফে জানানো হয়েছে, কাউকে প্রকাশ্যে ধূমপান করতে দেখলেই ছবি তুলে নির্দিষ্ট নম্বরে হোয়াটসঅ্যাপ করতে পারেন সাধারণ মানুষ। সেই অভিযোগ ভিত্তিতে পদক্ষেপ করা হবে।

Previous articleবাড়ল অপরিশোধিত তেলের দাম, জেনে নিন পেট্রোল ডিজেলের বাজার মূল্য