বাড়ি ছাড়ার নির্দেশে প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর মুখ বন্ধ হবে না, জানালো কংগ্রেস

বাড়ি ছাড়ার নির্দেশ দিলেই প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর মুখ বন্ধ হবে বলে যারা ভেবেছেন, তারা মূর্খ। থামানো যাবে না কংগ্রেসকেও।

বুধবার রাতে দিল্লির লোধি এস্টেটের বাংলো ছাড়ার জন্য প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে নোটিস ধরিয়েছে কেন্দ্র৷ আর তারপর এই সুরেই তোপ দেগেছে কংগ্রেস।

কংগ্রেস মুখপাত্র রণদীপ সুরজওয়ালা বলেছেন, “গোটা দেশ জানে তীব্র ঘৃণা ও প্রতিশোধের রাজনীতি চালিয়ে যাচ্ছে মোদি সরকার।” কিন্তু তাতে কংগ্রেসকে দমানো যাবে না”৷ এক ভিডিও বার্তায় রণদীপ বলেন, “বিজেপি সরকারের ঘৃণার রাজনীতির কথা সকলের জানা। এই রাজনীতি এখন অন্য মাত্রায় পৌঁছেছে। এই নোটিসই বুঝিয়ে দিচ্ছে কতটা হতাশ মোদি-যোগী সরকার। তবে এই হতাশ সরকারের কোনও সিদ্ধান্তই আমাদের দমাতে পারবে না।”
এদিকে জানা গিয়েছে, আপাতত প্রিয়াঙ্কা গান্ধী প্রয়াত মামিমা শীলা কলের গোখেল রোডের বাড়িতে উঠে যেতে পারেন।
বুধবার রাতে প্রিয়াঙ্কাকে নোটিস পাঠিয়ে জানানো হয় এক মাসের মধ্যে লোধি এস্টেটের সরকারি বাংলো খালি করতে হবে। ১ আগস্টের মধ্যে বাড়ি খালি না করলে জরিমানার মুখে পড়তে হবে প্রিয়াঙ্কাকে, একথাও বলা হয়েছে এই নোটিসে।

প্রসঙ্গত, ১৯৯৭ সাল থেকে ৩৫ বি লোধি এস্টেটের ৬বি টাইপ বাংলোতে আছেন প্রিয়াঙ্কা। সরকারের যুক্তি, যেহেতু গত নভেম্বর মাসে SPG নিরাপত্তা তুলে নেওয়া হয়েছে, তাই প্রিয়াঙ্কা এই বাংলোয় আর থাকার অধিকারী নন। ওদিকে পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং দাবি করেন, গান্ধী পরিবারের SPG ফিরিয়ে আনতে হবে। রাজনৈতিক মহলের মত, গেরুয়া শিবিরের বিরুদ্ধে ক্রমাগত আক্রমণ শানানো প্রিয়াঙ্কাকে চাপে ফেলতেই এই পথে হেঁটেছে কেন্দ্র৷