বলিউডের ১৮০ কোটির ছবিতে ‘সুপার ভিলেন’ অজয় দেবগন

স্বচ্ছ ভাবমূর্তির দাপুটে পুলিশ অফিসার, ঐতিহাসিক হিরো থেকে এবার তিনি সুপার ভিলেন।
সুপারহিরো নয় সুপার ভিলেন হিসেবে, এখনও পর্যন্ত বলিউডের সবচেয়ে বেশি বাজেটের ছবিতে কাজ করতে চলেছেন অজয় দেবগন। প্রযোজনা সংস্থা যশরাজ ফিল্মসের সঙ্গে প্রথম গাঁটছড়া বাঁধছেন তিনি।আনুষ্ঠানিক ঘোষণা হতে কয়েকটা দিন বাকি থাকলেও, বলিউডে কান পাতলেই শোনা যাচ্ছে এই খবর। তানাজি এবার খলনায়ক।
১৮০ কোটি টাকা বাজেটে বলিউডে আর কোন ছবি হয়েছিল আপাতত মনে করা যাচ্ছে না। সবচেয়ে বড় কথা এই ছবির জন্য ৯০ কোটি টাকা পারিশ্রমিক নেবেন অজয় দেবগন নিজেই। আর ছবির গ্রাফিক্স সহ উন্নত প্রযুক্তি, ক্যামেরা ও বাকি খরচ ধরা হয়েছে ৯০ কোটি। স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন, যে ছবিতে ৯০ কোটি পারিশ্রমিক নিচ্ছেন হিরো নন, ভিলেন, সেই ছবি কেমন হবে? শোনা যাচ্ছে, ছবিতে তাঁর সঙ্গে দেখা যাবে চাঙ্কি পাণ্ডের ভাইপো আহানকে।

হিরো হিসেবে অজয় দেবগন কে দেখতে অভ্যস্ত বলিউড। কখনো তিনি সিংহম। কখনও রোম্যান্টিক নায়ক। কখনো তিনি ঐতিহাসিক হিরো তানাজি।তবে খাকি, কাল, কোম্পানি-সহ বেশ কিছু ছবিতে ভিলেনের চরিত্রেও দেখা গিয়েছে তাঁকে। আর যশ রাজের ব্যানারে অজয়কে প্রথম দেখা যাবে সুপার ভিলেন হিসেবে।

আরও খবর : ধনকুবের ‘চাক ফিনি’, জীবদ্দশায় বিলিয়ে দিলেন ৮ মিলিয়ন ডলার!

২০২০ সাল বলিউডের জন্য খারাপ হলেও, অজয় দেবগনের কেরিয়ারের জন্য ভালোই। বছরের শুরুতে অজয়ের ১০০তম ছবি তানাজি ছিল অন্যতম হিট। বলিউডের জন্য খারাপ হলেও অজয় দেবগনের জন্য যে ভাল তা বেশ বোঝা যাচ্ছে। এই এ বছরটা প্রথম তারপরই যশরাজ ফিল্মসের সঙ্গে ছবি করতে চলেছেন তিনি।
এমনিতে অ্যাকশন হিরো অজয় দেবগন। তার মধ্যে রয়েছে রোম্যান্টিসিজমও। তবে এবার টানটান উত্তেজনা অ্যাকশনে সুপার ভিলেন হয়ে উঠবেন অজয় দেবগণ।সকলেরই আশা করোনামুক্তির পর হলে বসেই দেখা যাবে অ্যাকশন-থ্রিলারে ভরপুর ১৮০ কোটির ছবি।