আসামী ধরে ফেরার পথে কালিয়াচকে পুলিশের গাড়ি উল্টে ৩ সিভিক ভলান্টিয়ারের মৃত্যু

মালদা জেলার সদর মহকুমার কালিয়াচক থানার ৬-৭জন সিভিক ভলেন্টিয়ার আসামী ধরতে গিয়ে বড়সড় দুর্ঘটনার মুখে পড়েলন। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে এই দুর্ঘটনা ঘটে ।
এর জেরে ৩জন সিভিক ভলান্টিয়ার প্রাণ হারিয়েছেন । আরও ২জন সিভিক ভলেন্টিয়ার গুরুতর ভাবে জখম হন। দুর্ঘটনার কারণ হিসাবে জানা গিয়েছে, জাতীয় সড়কে তীব্র গতিতে গাড়ি চালানোর সময় কার্যত নিয়ন্ত্রণহীণ হয়ে গাড়িটি জাতীয় সড়কেই উল্টে যায় ও ২-৩টি ডিগবাজি খেয়ে তা রাস্তার ধারে গিয়ে পড়ে। দুর্ঘটনায় জখম এক সিভিক ভলেন্টিয়ারকে কলকাতার এসএসকেএম হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে।
প্রাথমিক ভাবে জানা গিয়েছে, গতকাল রাতে কালিয়াচক থানার আইসির নেতৃত্ব একটি বড় বাহিনী জালালপুরের উদ্দেশ্যে রওনা হয়েছিল এক আসামীকে পাকড়াও করতে। যে গাড়িটি দুর্ঘটনাগ্রস্থ হয় তাতে ৭জন সিভিক ভলেন্টিয়ার ছিলেন। জালালপুরে ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কের উপরে ডাঙ্গা গ্রামে সিভিক ভলান্টিয়ারদের গাড়িটি উল্টে যায়। তাতেই সকলে কম বেশি জখম হন।

রাতেই তাঁদের উদ্ধার করে ইংরেজবাজারের মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানেই শুক্রবার সকালে পঙ্কজ মণ্ডল, ইমাদাদুল শেখ ও ওয়াহেদুর রহমান নামে ৩ সিভিক ভলেন্টিয়ার মারা যান। আরও ২জন সিভিক ভলেন্টিয়ার গুরুতর আহত অবস্থায় সেখানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।
তবে আসামী ধরে ফেরার পথেই এই দুর্ঘটনা হওয়ায় প্রশ্ন উঠেছে। ঠিক কী কারণে এত বড় দুর্ঘটনার শিকার হলেন সিভিক ভলেন্টিয়াররা তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

Advt