ভারতে ফের ঊর্ধ্বমুখী করোনা গ্রাফ, ১১ রাজ্যের সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠকে বসতে পারেন প্রধানমন্ত্রী

বাংলায় তৃতীয় দফা ভোটের আগে একদিকে যখন রাজনীতির পারদ দিনে দিনে চড়ছে । সেই সময় দেশে ভয়াবহ রূপ ধারণ করে ক্রমশ ঊর্ধ্বমুখী হচ্ছে করোনা সংক্রমণের সংখ্যা। গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৮৯ হাজার ১২৯ জন। কীভাবে সামাল দেওয়া যায় সেই চিন্তাই ভাবনার বিষয় হয়ে দাড়িয়েছে বর্তমানে। এই মহামারি পরিস্থিতি সামাল দেওয়ার জন্য এগারোটি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠকে বসতে পারেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।


২০২০-র করোনার ছবি ফের স্পষ্ট হচ্ছে ২০২১। বিশেষজ্ঞ মহলের আশঙ্কা, করোনার সেকেন্ড ওয়েভ দ্রুত আছড়ে পড়তে পারে। এই পরিস্থিতিতে করোনার উদ্বেগের কথা কার্যত মেনে নিয়েছে কেন্দ্রের সরকার। যার ফলে দেশের ১১ রাজ্যের সঙ্গে আলোচনায় বসতে চায় প্রধানমন্ত্রী। যার মধ্যে সব বেশি চিন্তা মহারাষ্ট্রকে নিয়ে। কারণ মহারাষ্ট্র এখনও সংক্রমনের নিরিখে শীর্ষ আসনেই রয়েছে।

দেশের মধ্যে মহারাষ্ট্র ছাড়াও রয়েছে পাঞ্জাব এবং ছত্তিসগড়। বর্তমানে করোনা সংক্রমণে শীর্ষে রয়েছে এই তিন রাজ্য। এই তিন রাজ্যে সংক্রমণ ব্যপক দ্রুত গতিতে ছড়িয়ে পড়ছে বলে জানা গিয়েছে। গোটা বিষয়টি মুখ্যসচিব কেন্দ্রীয় ক্যবিনেট সচিব রাজীব গৌবা কেন্দ্রিয় স্বাস্থসচিব সব রাজ্যের ডিজিপিও , এধিকারিক এবং নিতি আয়োগের সদস্যরা আলোচনায় বসেছিলেন। বর্তমানে ভারতের করোনার চিত্র অতিব ভয়ংকর। তা পরিসংখ্যানের রিপোর্টেই পরিষ্কার। ২০২০র জুনের করোনা রেকর্ডকে ভেঙ্গে দিয়েছে এই বছরের মার্চের সংক্রমন। টিকাকরন শুরু হলেও বর্তমানে কোভিড নাইনটিন (COVID19) যেন আবার মাথাচাড়া দিয়েছে। ৭ কোটি ৩০ লক্ষ ৫৪ হাজার ২৯৫।

Advt