Sayani Das: ইতিহাস তৈরি করলেন বাংলার সাঁতারু সায়নী দাস

মলোকাই চ্যানেল জয়ের পর সেখানেই ভারতের জাতীয় পতাকা তুলে ধরেন সায়নী। মহিলা সাঁতারু হিসাবে সায়নী এই নিয়ে চারটি চ্যানেল জয়ের দৃষ্টান্ত তৈরি করতে পারায় উচ্ছ্বসিত তাঁর পরিবারের লোকজনেরা।

ইতিহাস তৈরি করলেন বাংলার সাঁতারু সায়নী দাস (Sayani Das)। শুধু ভারতের মধ্যেই নয় এশিয়া মহাদেশের প্রথম মহিলা সাঁতারু হিসাবে মার্কিন মুলুকের মলোকাই চ্যানেল (Molokai Channel) জয় করলেন তিনি। এরফলে আরও একটি নতুন রেকর্ড গড়ে ইতিহাসের পাতায় জায়গা করে নিলেন কালনার এই মেয়ে। জয়ের পর সেখানেই ভারতের জাতীয় পতাকা তুলে ধরেন সায়নী। মহিলা সাঁতারু হিসাবে সায়নী এই নিয়ে চারটি চ্যানেল জয়ের দৃষ্টান্ত তৈরি করতে পারায় উচ্ছ্বসিত তাঁর পরিবারের লোকজনেরা।

মলোকাই চ্যানেল জয়ের লক্ষ্যে গত ২৯ মার্চ মার্কিন মুলুকে পা রাখেন সায়নী দাস। এপ্রিল মাসের প্রথম দু’সপ্তাহের মধ্যে মলোকাইয়ের জলে নামার কথা থাকলেও খারাপ আবহাওয়ার কারণে নামতে পারেননি তিনি। কারণ সেই সময় হাওয়ার গতিবেগ প্রতি ঘণ্টায় ৩৫-৪৫ কিমি ছিল। যা মলোকাইয়ের জলে নামার ক্ষেত্রে ঝুঁকিপূর্ণ।এছাড়াও ঢেউ ছিল দু’মিটারের উপরে। রয়েছে কারেন্টও। যা অন্যান্য সময়ের তুলনায় অনেক বেশী। তাই সায়নীর পাইলট জানিয়েছিলেন ভাল আবহাওয়ার জন্য একটু অপেক্ষা করতে হবে। সেইমত জানানো হয়েছিল ২৬-২৮ এপ্রিল আবহাওয়া ভাল হলে জলে নামতে পারেন সায়নী। সেই মতোই জলে নামেন সায়নী। আর জলে নেমেই ইতিহাস তৈরি করেন কালনার এই মেয়ে।

এই নিয়ে সায়নীর বাবা তথা কোচ রাধেশ্যাম দাস বলেন,” আবহাওয়া প্রতিকূল থাকার সময়ে মলোকাইয়ের জলে সায়নী নামতে না পারলেও অনুশীলন বন্ধ করেনি। আমেরিকার হাওয়াই দ্বীপপুঞ্জে টানা বাইশ দিন সায়নী কঠিন অনুশীলনে চালিয়ে গিয়েছে।”

আরও পড়ুন:Bengal: সেমিফাইনালে মণিপুরকে হারিয়ে সন্তোষ ট্রফির ফাইনালে ওঠাই লক্ষ‍্য বাংলার

Previous articleপ্রয়াগরাজ গণহত্যাকাণ্ড: মানবাধিকার কমিশনে নালিশ তৃণমূল কংগ্রেসের