Indian railway:কাঁচ ভেঙে রক্তাক্ত শিশু, এক টুইটেই পদক্ষেপ করলেন রেলমন্ত্রী

গোটা বিষয়টা জানিয়ে রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণবকে ট্যাগ করে টুইট করে দেন। কিছুক্ষণের মধ্যেই রেলের তরফে যোগাযোগ করা হয়। রেলমন্ত্রী সঙ্গে সঙ্গেই হাওড়ার ডিআরএমকে পদক্ষেপ করতে বলেন।

ট্রেনের মধ্যেই রক্তাক্ত শিশু, জানলার কাঁচ ভেঙে সোজা পড়ল হাতে,আঙুল থেঁতলে গিয়ে প্রচণ্ড রক্তপাত। যন্ত্রণায় কাতরাচ্ছে শিশু, অসহায় মা বাবা। এই দৃশ্য ১২৪৬৪ হলদিবাড়ি কলকাতা এক্সপ্রেসের (Haldibari- Kolkata Express) ডি৩ কামরার। এই ট্রেনেই ছিলেন জলপাইগুড়ির বিশিষ্ট সমাজসেবী নব্যেন্দু মৌলিক। সময় নষ্ট না করে রেলমন্ত্রীকে উদ্দ্যেশ্য করে টুইট করেন। তাঁর টুইট পেয়ে দ্রুত চিকিত্‍সার নির্দেশ দেন মন্ত্রী (Railway Minister)।প্রায় ২৫ মিনিট ট্রেন থামিয়ে খুদে যাত্রীকে চিকিত্‍সা করে সুস্থ করে তুললেন রেলের চিকিত্‍সকের (Railway Doctors)দল। রেলের পরিষেবায় অভিভূত যাত্রীরা ধন্যবাদ জানালেন ভারতীয় রেলকে (Indian Railway)।

সূত্রের খবর, বুধবার কলকাতা সুপার ফাস্ট ট্রেনের D3 কামড়ায় চড়েন জলপাইগুড়ির বিশিষ্ট সমাজসেবী নব্যেন্দু মৌলিক (Nabyendu Moulik)। পথে কিষানগঞ্জ থেকে একটি সংখ্যালঘু পরিবার তাদের সন্তানদের নিয়ে ওই একই কামরায় ওঠে। রামপুরহাটের কাছে ওই দম্পতির শিশু সন্তানটি চিৎকার করে কাঁদতে শুরু করে। ছটফট করছিল বাচ্চাটা। ট্রেনের জানলার কাঁচ কোনও ভাবে বাচ্চাটার হাতে পড়ে গেছিল। আঙুল থেঁতলে প্রচণ্ড রক্তপাত হয়। বিশিষ্ট সমাজসেবী নব্যেন্দু মৌলিক এই নিয়ে পদক্ষেপ করেন। দেরি না করেই তিনি রেলের হেল্পলাইনে ফোন করার চেষ্টা করেন। কিন্তু নেটওয়ার্ক জটিলতায় কোনও ভাবেই হেল্পলাইন নম্বরটি মিলছিল না৷ এদিকে বাচ্চাটির পরিবারও তেমনভাবে সোশ্যাল মিডিয়ায় সড়গড় নয়। তাই তিনিই উদ্যোগ নিয়ে গোটা বিষয়টা জানিয়ে রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণবকে (Ashwini Vaishnaw)ট্যাগ করে টুইট করে দেন। কিছুক্ষণের মধ্যেই রেলের (Indian Railway)তরফে যোগাযোগ করা হয়। রেলমন্ত্রী (Indian Railway) সঙ্গে সঙ্গেই হাওড়ার ডিআরএমকে পদক্ষেপ করতে বলেন। বোলপুর স্টেশনে রেলের স্বাস্থ্যকর্মীরা হাজির হয়ে শিশুটির চিকিৎসা করে। ২৫ মিনিট ট্রেন থামিয়ে বাচ্চাটির যাবতীয় চিকিৎসা করা হয়। সেলাইয়ের প্রয়োজন হওয়ায় রেল হাসপাতালে নিয়ে যেতে চাইলেও, পরিবার ফার্স্ট এইড নিয়ে কলকাতা যেতে চায়। সেই মতো সব করে তবেই ট্রেন ছাড়ে। রেলের পক্ষ থেকেও ডিআরএমকে জানিয়ে দেওয়া হয় যে বাচ্চাটি সুস্থ আছে।

এই ঘটনা সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হতেই ভারতীয় রেলের (Indian Railway)অভাবনীয় উদ্যোগ ও পরিষেবার প্রশংসায় পঞ্চমুখ দেশ। পাশাপাশি সমাজসেবী নব্যেন্দু মৌলিক নিজেও ভূয়সী প্রশংসা করে কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণবকে (Ashwini Vaishnaw)।



Previous article‘ডাক্তার হয়ে বাবার চোখের চিকিৎসা করতে চাই,’ ছাত্রীর কথায় আবেগতাড়িত মোদি