মানিককে মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা করতেই “আত্মহত্যা”র হুমকি ত্রিপুরার মন্ত্রী রামপ্রসাদের

মানিক সাহাকে নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে মানতে নারাজ ত্রিপুরা বিজেপির একটি বড় অংশ। সবচেয়ে বেশি আপত্তি জনান রাজ্য মন্ত্রিসভার গুরুত্বপূর্ণ সদস্য রামপ্রসাদ পাল

অমিত শাহের সঙ্গে বৈঠকের ২৪ ঘন্টার মধ্যেই আচমকা ত্রিপুরার প্রথম বিজেপি মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবের। বিধানসভা ভোটের ১০ মাস আগে প্রবল প্রতিষ্ঠান বিরোধী হাওয়া আটকাতে বিপ্লবকে সরিয়েছে বিজেপি শীর্ষ নেতৃত্ব। কিন্তু মুখ্যমন্ত্রী বদল করেও ত্রিপুরা বিজেপির গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব দূর তো করা গেল না, বরং নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে মানিক সাহার নাম ঘোষণার পরই আরও উত্তেজনা তৈরি হয়েছে ত্রিপুরা বিজেপির অন্দরে।

মানিক সাহাকে নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে মানতে নারাজ ত্রিপুরা বিজেপির একটি বড় অংশ। সবচেয়ে বেশি আপত্তি জনান রাজ্য মন্ত্রিসভার গুরুত্বপূর্ণ সদস্য রামপ্রসাদ পাল। অভিযোগ, মানিক সাহার নাম নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে ঘোষণা হতেই ক্ষোভে ফেটে পড়েন রামপ্রসাদ। আগরতলায় মুখ্যমন্ত্রীর আবাসনে বৈঠকের মধ্যেই কেন্দ্রীয় মন্ত্রী তথা ত্রিপুরার পর্যবেক্ষক ভূপেন্দ্র যাদবের দিকে চেয়ার ছুঁড়ে মারেন রামপ্রসাদ। রাজ্য বিজেপিতে যিনি বিপ্লব দেবের ঘনিষ্ঠ বলেই পরিচিত।

এখানেই শেষ নয়। মানিক সাহার নাম মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে বিবেচিত হতেই মন্ত্রী রামপ্রসাদ পাল চিৎকার করে বলতে থাকেন, ”আমি মরে যাবো, আত্মহত্যা করবো। কিন্তু এই দল আর করব না৷” রামপ্রসাদ পাল আগাগোড়াই মানিক সাহার বিরোধী গোষ্ঠীর নেতা বলে পরিচিত৷ একটি সময়ে মানিক সাহাকে বিজেপির রাজ্য সভাপতির পদ থেকে সরিয়ে দেওয়ার জন্যও সোচ্চার হয়েছিলেন তিনি৷

 

আরও পড়ুন- দলীয় অন্তর্কলহের মধ্যেই ত্রিপুরার নয়া মুখ্যমন্ত্রী মানিক সাহা

প্রসঙ্গত, বিপ্লব দেবের আচমকা ইস্তফার পর নতুন মুখ্যমন্ত্রী নির্বাচন করতে ত্রিপুরা বিজেপির পরিষদীয় দলের বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন দলের দুই কেন্দ্রীয় নেতা ভূপেন্দ্র যাদব এবং বিনোদ তাওরে৷ তাঁদের সামনেই ক্ষোভে ফেটে পড়েন রামপ্রসাদ৷ হাতের কাছে থাকা একটি প্লাস্টিকের চেয়ার তুলেভুপেন্দ্র যাদবের দিয়ে ছুঁড়ে দেন তিনি। বলেন, “আত্মহত্যা করবো। মরে যাবো, কিন্তু মানিক সাহাকে কোনওমতেই মুখ্যমন্ত্রী হতে দেবো না।” যদিও তাঁর হুঁশিয়ারিতে মানিক সাহার ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী হওয়া আটকালো না।

 

 

 

Previous articleI-League: ইতিহাস গড়তে পারল না মহামেডান, টানা দু’বার আইলিগ চ‍্যাম্পিয়ন গোকুলাম