ATK Mohunbagan: দু’বছরের চুক্তিতে বাগানে সই করলেন অস্ট্রেলিয়ান ডিফেন্ডার ব্রেন্ডন হ্যামিল

এর আগে হ্যামিল খেলেছেন অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্ন হার্ট, দক্ষিণ কোরিয়ার সিয়ংনাম, অস্ট্রেলিয়ার ওয়েস্টার্ন সিডনি ওয়ান্ডারার্স, ওয়েস্টার্ন ইউনাইটেডের হয়ে।

জল্পনাই হল সত‍্যি। দু’বছরের চুক্তিতে এটিকে মোহনবাগানে ( ATK Mohunbagan) সই করলেন অস্ট্রেলিয়ান ডিফেন্ডার ব্রেন্ডন হ্যামিল (Brendan Hamill)। তিরির পরিবর্ত হিসাবে অস্ট্রেলিয়ান এই ফুটবলারকে দলে নিল বাগান কর্তৃপক্ষ। গত মরশুমে অস্ট্রেলিয়ান লিগের রানার্স ক্লাব মেলবোর্ন ভিকট্রিতে ছিলেন বাগানের এই নতুন বিদেশি। আসন্ন এএফসি কাপের সেমিফাইনালের জন্য এশীয় কোটার একজন বিদেশিকে খুঁজছিলেন সবুজ-মেরুন কোচ জুয়ান ফেরান্ডো। সেই কারণে চতুর্থ বিদেশি হিসেবে হ‍্যামিলকে নিল সবুজ-মেরুন ক্লাব।

এর আগে হ্যামিল খেলেছেন অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্ন হার্ট, দক্ষিণ কোরিয়ার সিয়ংনাম, অস্ট্রেলিয়ার ওয়েস্টার্ন সিডনি ওয়ান্ডারার্স, ওয়েস্টার্ন ইউনাইটেডের হয়ে। তাঁর সিনিয়র কেরিয়ারের প্রথম ক্লাব মেলবোর্ন হার্ট (২০১০-১২)। এই ক্লাবে সই করার আগে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের একাধিক ক্লাবে খেলার প্রস্তাব ছিল তাঁর কাছে। অস্ট্রেলিয়ার যুব দলের জার্সিতেও খেলেছেন ব্রেন্ডন। এছাড়া এএফসি কাপে খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে হ‍্যামিলের।

হ্যামিলকে সই করানো নিয়ে কোচ জুয়ান ফেরান্ডো বলেন, “হ্যামিলকে বেছে নেওয়ার কারণ ও শুধু রক্ষণে নির্ভরতা জোগায় না, পিছন থেকে খেলাটা তৈরিও করে। ও দলে যোগ দেওয়ায় আমার রক্ষণ কঠিন সময়ে ওর থেকে সাহায্য পাবে। অস্ট্রেলিয় লিগে ওর খেলা আমি দেখেছি। ওর অভিজ্ঞতা দলকে সমৃদ্ধ করবে।”

এদিকে এটিকে মোহনবাগানে সই করে উচ্ছসিত  হ্যামিল। তিনি বলেন,”ভারতীয় ফুটবল সম্পর্কে যে তথ্য জেনেছি তাতে এই ক্লাবের একটা বিশাল ফুটবল ইতিহাস আছে। সবুজ মেরুন জার্সির ঐতিহ্য ও পরম্পরা ভারতীয় ফুটবলকে সমৃদ্ধ করেছে। অন্য ক্লাবের প্রস্তাব থাকলেও এই ক্লাব আমাকে টেনেছে। ভারতে এসে ঐতিহ্যবাহী ক্লাবকে সাফল্য ও ট্রফি এনে দেওয়ার জন্য মুখিয়ে আছি। শুনেছি কলকাতা ফুটবলের শহর। এই ক্লাবের কোটি কোটি সমর্থক। মেরিনার্সদের আনন্দ দেওয়া এবং খুশি করাই লক্ষ্য হবে আমার।”

আরও পড়ুন:স্নান করার ফাঁকে বৌকে চুমু ! বেদম মার খেলেন দম্পতি

 

 

Previous articleঅসম ডুবছে, মুখ্যমন্ত্রী ব্যস্ত মহারাষ্ট্রে সরকার ফেলতে: তীব্র আক্রমণ অভিষেকের