Modi – Mamata: চারদিনে তিনবার মোদি মমতার সাক্ষাৎ ! জল্পনা রাজনৈতিক মহলে

শুক্রবার প্রায় ৪০ মিনিটের বেশি সময় ধরে বৈঠক হয় নরেন্দ্র মোদি এবং মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। বিকেল সাড়ে চারটে থেকে বৈঠক শুরু হবার কথা ছিল। তার বেশ খানিকটা আগেই প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনে পৌঁছে যান বাংলার মুখ্যমন্ত্রী।

শুক্রবারের পর আজ শনিবার ফের সাক্ষাৎ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi) এবং পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee)। আজ বিকেলে স্বাধীনতার ৭৫ বছর পূর্তি উপলক্ষে কেন্দ্রের এক বৈঠকে ফের মুখোমুখি মোদি-মমতা। রাজনৈতিক মহলে ইতিমধ্যেই শুরু হয়েছে জল্পনা।

শুক্রবার প্রায় ৪০ মিনিটের বেশি সময় ধরে বৈঠক হয় নরেন্দ্র মোদি এবং মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। বিকেল সাড়ে চারটে থেকে বৈঠক শুরু হবার কথা ছিল। তার বেশ খানিকটা আগেই প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনে পৌঁছে যান বাংলার মুখ্যমন্ত্রী। বিরোধীরা এই নিয়ে নানা মন্তব্য করলেও , কার্যত বাংলার দাবি দাওয়াকে প্রধানমন্ত্রীর কাছে তুলে ধরতে টানা ৪০ মিনিট ধরে বৈঠক মমতার। এই বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীর কাছে রাজ্যের বকেয়া ১ লক্ষ ৯৬৮ কোটি টাকার হিসেব ধরান মুখ্যমন্ত্রী। একইসঙ্গে নাম বিতর্কে আটকে থাকা প্রকল্পগুলি নিয়েও কথা হয়েছে মমতা-মোদির বলে জানা যায়। রাজ্যের প্রতি কেন্দ্রের বঞ্চনা আজ নতুন নয়। জানিয়ে বারবার সরব হয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দীর্ঘদিন ধরেই ১০০ দিনের কাজের টাকা আটকে রেখেছে কেন্দ্রীয় সরকার। বার বার টাকা মিটানোর দাবি জানানো হলেও সে বিষয়ে কর্ণপাত করেনি মোদি সরকার। এমনকি এই ইস্যুতে সংশ্লিষ্ট দফতরের মন্ত্রী গিরিরাজ সিংয়ের সঙ্গেও সাক্ষাৎ করে তৃণমূলের সংসদীয় প্রতিনিধি দল। তারপরও দেখা যায়নি কোনও হেলদোল। এই ইস্যুতেই সরাসরি এদিন প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন মমতা। এর পাশাপাশি ‘বাংলা আবাস যোজনা’ ও ‘বাংলা সড়ক যোজনা’ নামকরনের জেরে আটকে রাখা হয়েছে এই দুই প্রকল্পের টাকা। এর পাশাপাশি একাধিক প্রকল্পের বকেয়া আটকে রেখেছে মোদি সরকার।

শুক্রবারের পর আজ শনিবার ফের মুখোমুখি মমতা- মোদি। তবে এর সঙ্গে রাজনীতির কোনও সম্পর্ক নেই। স্বাধীনতার ৭৫ বছর উপলক্ষে বিভিন্ন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর একটি বৈঠক হওয়ার কথা আছে আজকে। সেই উপলক্ষ্যে নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ফের সাক্ষাৎ হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। আগামীকাল রবিবার ‘নীতি আয়োগ’-এর বৈঠকে যোগ দিতে পারেন মমতা। সেক্ষেত্রে চার দিনের দিল্লি সফরে তিনবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আর নরেন্দ্র মোদির সাক্ষাৎ ঘিরে ইতিমধ্যেই নানা আলোচনা রাজনৈতিক মহলে।

Previous articleWeather update: বঙ্গোপসাগরে ঘূর্ণাবর্ত ! আগামী তিন দিন ভারী বৃষ্টির সতর্কতা