সায়ন্তনের পর ‘বেলাগাম’ রাজু, থানার সামনে দাঁড়িয়েই হুমকি বিজেপি নেতার

বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু থানা জ্বালানোর হুমকি দিয়েছিলেন এইচডি তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র মামলা করে পুলিশ কিন্তু তারপরেও বিজেপি নেতার গলায় হুমকি সুর। কোচবিহার কোতোয়ালি থানার সামনে দাঁড়িয়ে রাজ্যের প্রতিটি থানা ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দিলেন বিজেপি নেতা রাজু বন্দ্যোপাধ্যায়ের।

কোতোয়ালি থানা ঘেরাও কর্মসূচিতে দলীয় সহকর্মীদের নিয়ে একটি সভায় তিনি বলেন, “আমাদের যা ক্ষমতা রয়েছে তাতে আমরা যে কোন থানায় ঢুকে সেই থানা ভেঙে গুঁড়িয়ে দিতে পারি”। তাঁর অভিযোগ, সাধারণ মানুষের জমি দখল করে সেগুলিতে কার্যালয় তৈরি করা হয়েছে। ক্ষমতায় এলে সেই কার্যালয়গুলিকে বিজেপি ভেঙে গুঁড়িয়ে দেবে বলেও মন্তব্য করেন রাজু।
বৃহস্পতিবার, কোতোয়ালি থানা ঘেরাও কর্মসূচিতে পুলিশের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন রাজু বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর অভিযোগ, বিজেপি কর্মীদের উপরে লাগাতার আক্রমণ, হুমকি এবং খুনখুনি চলছে রাজ্যে। অভিযোগ থাকা সত্ত্বেও কাউকে গ্রেফতার করা হচ্ছে না।
উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী রবীন্দ্রনাথ ঘোষকে সরাসরি ‘ক্রিমিনাল’ বলে কটাক্ষ করেন রাজু বন্দ্যোপাধ্যায়।
রাজু বন্দ্যোপাধ্যায়ের কথার জবাবে উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী রবীন্দ্রনাথ ঘোষ মন্তব্য করেন, “পাগলে কি না বলে, ছাগলে কি না খায়। পাগলে কী বকল তার প্রেক্ষিতে আমার কিছু বলার নেই। পাগল যা খুশি তাই বলতে পারে”।

কিন্তু কেন্দ্রের তরফে জামায়াতে নিষেধাজ্ঞা থাকলেও, এদিন বিজেপি থানা ঘেরাও অভিযানে যথেষ্ট সংখ্যক লোক ছিল। শুধু তাই নয়, সামাজিক দূরত্ব বৃদ্ধি সামান্যতম মানা হয়নি।