বায়োপিকের অফার ফেরালেন সোনু, লকডাউন পাল্টে দিচ্ছে ফিল্মি কেরিয়ার!  

সোনু সুদ। আলাদা করে পরিচয় দেওয়ার প্রয়োজন নেই। তাঁর জীবন নিয়ে বায়োপিক তৈরির প্রস্তাবে না বলে দিলেন। পরে নিজের হাতেই বই লেখার ইচ্ছে আছে।

লকডাউনে ভিলেন থেকে হিরো। হ্যাঁ ঠিক তাই। সোনু সুদ রিল লাইফে অধিকাংশ ছবিতে ভিলেনের ভূমিকায়। লকডাউনে পরিযায়ী শ্রমিকদের কাছে মসিহা। কয়েক লক্ষ মানুষকে বাড়ি পাঠিয়েছেন একার উদ্যোগে। এবার তিন লক্ষ পরিযায়ী শ্রমিককে চাকরি দেওয়ার অভিযানে নেমেছেন। কিন্তু এর মাঝে তাঁর জীবনচক্র বদলে গিয়েছে। বহু প্রোডিউসার আসছেন তাঁর বায়োপিক করার জন্য। সোনু এক কথায় সে সব খারিজ করে দিয়ে বলেছেন, সেই বয়স বা কাজ আমি করিনি যাতে আমার বায়োপিক হতে পারে। বরং এখনকার ঘটনা মনে রাখছি। পরে সেগুলো নিয়ে বই লেখার ইচ্ছে আছে।

বড় পর্দায় হিরো হওয়ার স্বপ্ন দেখতেন সোনু। কিন্তু হয়ে যান ভিলেন। শেষ চার মাসে তাঁর জীবন যেমন পাল্টেছে, তেমনি ফিল্মি অফারেও পরিবর্তন এসেছে। বহু প্রোডিউসার এখন তাঁকে নায়ক হিসাবে পেতে চাইছেন। প্রোডিউসারের তালিকায় নামিদামীরাও রয়েছেন। সোনু বেশিরভাগ স্ক্রিপ্ট পড়ার সুযোগই পাননি। বলছেন, এখন চাকরি দেওয়ার কাজে ডুবে। সেটা শেষ হলে স্ক্রিপ্টে হাত দেব। তারপর সিদ্ধান্ত।