আজ মুখ্যমন্ত্রীর হাত দিয়ে উদ্বোধন, সেজে উঠেছে মাঝেরহাট ব্রিজ

বদলে যাওয়া, নব কলেবরে সেজে ওঠা বহু চর্চিত মাঝেরহাট ব্রিজের উদ্বোধন হবে আজ বিকেলে। ২ বছর ৩ মাস পর ফের মাঝেরহাট ব্রিজ দিয়ে শুরু হবে যান চলাচল। নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুকে সম্মান-শ্রদ্ধা জানাতে ব্রিজের নতুন নামকরণও করা হয়েছে, “জয় হিন্দ সেতু”। নবনির্মিত ব্রিজটির উদ্বোধন করবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এছাড়াও উপস্থিত থাকবেন পূর্তমন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস। তার আগে সেজে উঠেছে মাঝেরহাট ব্রিজ।

আরও পড়ুন:“এরা প্রধানমন্ত্রীকেও বহিরাগত বলে!” এবার বেসুরো বৈশালী

তারপরই ওই ব্রিজ থেকে যান চলাচল শুরু হয়ে যাবে। নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসুর আসন্ন ১২৫তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষ্যে সেতুটিকে তাঁর স্মৃতিতে উৎসর্গ করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। বর্ণময় আলোর ছটায় ঝলমল করছে দ্বিতীয় হুগলি সেতুর আদলে দেখতে নতুন এই ব্রিজটি। সল্টলেক স্টেডিয়াম এবং নিউটাউনের বিশ্ব বঙ্গ কনভেনশন সেন্টারকে যে সংস্থা আলোয় সাজিয়ে তুলেছেন, তারাই মাঝেরহাট সেতুর আলোকায়নের দায়িত্ব পেয়েছেন। ৬৫০ মিটার দৈর্ঘ্যের এই ব্রিজের উদ্বোধনের ফলে দক্ষিণ কলকাতা থেকে বেহালা-ঠাকুরপুকুর যাতায়াতের খুব সুবিধা হয়ে যাবে। পূর্তদপ্তরের অধীনে থাকা নতুন সেতুটির ভার বহনের ক্ষমতা ৩৮৫ টন। ৮৪টি কেবলের মাধ্যমে ঝুলন্ত অবস্থায় রয়েছে ব্রিজটি।