নিরাপত্তার ঘেরাটোপে রাজ্যে শুরু হল পঞ্চম দফার নির্বাচন

পর পর চার দফা পেরিয়ে রাজ্যে শুরু হয়ে গেল পঞ্চম দফার ভোট গ্রহণ। আজ,শনিবার ৪৫ টি বিধানসভা আসনে পঞ্চম দফার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে চলেছে। এই ৪৫ টি আসনের মধ্যে জলপাইগুড়ি জেলায় সাতটি, কালিম্পংয়ের একটি, দার্জিলিংয়ের পাঁচটি, নদিয়ার আটটি, উত্তর ২৪ পরগনায় ১৬ টি এবং পূর্ব বর্ধমানের আটটি বিধানসভা আসনে ভোট হবে।শীতলকুচির ঘটনায় শিক্ষা নিয়ে নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরও জোড়দার করেছে নির্বাচন কমিশন।

অন্যদিকে করোনার সুরক্ষাবিধি মেনেই ভোটগ্রহণ প্রক্রিয়া চালানোর নির্দেশ দিয়েছে কমিশন। রাজ্যের মোট ১৫ হাজার ৭৮৯ বুথের জন্য জন্য কেন্দ্রীয় আধাসেনার মোট ৮৫৩ কোম্পানি বাহিনী এবং ১৫,৭৯০ জন রাজ্য পুলিশের কর্মী মোতায়েন থাকছে। এই ৪৫ টি বিধানসভা আসনে ভোটারদের সংখ্যা ১ কোটি ১৩ লক্ষ ৪৭ হাজার ৩৪৪। যার মধ্যে ৫৭,৩৫,৭৬৬ পুরুষ এবং ৫৬,১১,৩৫৪ জন মহিলা।

এ ছাড়াও সেক্টর অফিস, কিউআরটি, পোস্ট পোল সিচুয়েশন, পোস্টাল ব্যালট, স্ট্রং রুমের জন্য আরো ১১৮ কোম্পানি বাহিনী মজুদ রাখা হয়েছে। সব মিলিয়ে রাজ্যে পঞ্চম দফার নির্বাচনে মোট ১০৭১ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী ব্যবহার করা হচ্ছে। পঞ্চম দফায় সাধারণ পর্যবেক্ষক ৩৩ জন, পুলিশ পর্যবেক্ষক ১২ জন এবং আয় ব্যয় সংক্রান্ত পর্যবেক্ষক থাকছেন ১৬ জন।

শনিবার, পঞ্চম দফায় ভাগ্য পরীক্ষায় নামবেন মোট ৩১৯ জন প্রার্থী। যাদের মধ্যে হেভিওয়েট প্রার্থীদের মধ্যে থাকছেন মদন মিত্র, চিরঞ্জিত, অদিতি মুন্সি, পার্ণো মিত্র, সব্যসাচী চক্রবর্তী, সুজিত বসু প্রমুখ। এই দফায় ৮০ উর্ধ্ব ভোটারদের জন্য বিশেষ সুবিধা থাকছে। উবেরর অ্যাপ ক্যাবের সাহায্যে বিনা পয়সায় ভোটকেন্দ্রে ভোট দিতে পারবেন তাঁরা।

Advt