রাজ্যবাসীকে স্বস্তি দিয়ে উত্তরবঙ্গে ঢুকল বর্ষা

হাঁসফাঁস গরম থেকে রাজ্যবাসীকে স্বস্তি দিয়ে বাংলায় ঢুকল বর্ষা। মৌসম ভবন সূত্রের খবর, রবিবারই উওরবঙ্গে ঢুকে পড়েছে বর্ষা। এর জেরে উত্তরবঙ্গের পাঁচ জেলায় প্রবল বৃষ্টি হয়েছে। আগামী ৪৮ ঘণ্টায় সেখানে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে। তবে দক্ষিণবঙ্গে বর্ষা পৌঁছতে আরও দিন পাঁচেক অপেক্ষা করতে হবে বলে জানানো হয়েছে। যদিও রবিবার বিকেলে কলকাতার বেশ কিছু এলাকায় বৃষ্টিপাত হয়।

আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, রবিবার আগামী ২-৩ ঘণ্টায় উত্তর ২৪ পরগনা, হুগলি এবং পূর্ব বর্ধমান জেলার কয়েকটি জায়গায় বজ্রবিদ্যুৎ-সহ হালকা ও মাঝারি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। সেইসঙ্গে ঘণ্টায় ৩০-৪০ কিলোমিটার বেগে বইতে পারে ঝোড়ো হাওয়া। বিকেল থেকে আগামী ১ থেকে ২ ঘণ্টা কলকাতা সহ হাওড়া ও দক্ষিণ ২৪ পরগনায় বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া দফতর।

আবহাওয়া দফতর সূত্রের খবর, রবিবার উত্তরবঙ্গে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমী বায়ু ঢুকে পড়ায় সেখানে বর্ষার আগমন ঘটেছে। চলতি বছরে নির্ধারিত সময়ের আগেই বর্ষার আগমন হয়েছে। সাধারণত ৭ জুন রাজ্যে বর্ষার আগমন হয়। আবহাওয়া অধিকর্তা জানিয়েছেন, আগামী ১১ জুন বঙ্গোপসাগরে একটি নিম্নচাপ তৈরির পূর্বাভাস দিয়েছেন। তার জেরে দক্ষিণবঙ্গেও বর্ষার আগমন হবে।

এদিকে গত দুয়েক ধরে উত্তরবঙ্গে প্রাক বর্ষার বৃষ্টিপাত হচ্ছিল। সব থেকে বেশি বৃষ্টি হচ্ছিল দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি, কালিম্পং, আলিপুরদুয়ার এবং কোচবিহারে। এদিন দুপুরে আবহাওয়া দফতর থেকে সেখানে সরকারি ভাবে এবারের বর্ষার প্রবেশের কথা জানানো হয়েছে। বর্ষা ঢুকেছে বাগজোগরা পর্যন্ত। তবে সেখানে একদিন আগেই বর্ষা ঢুকেছে বলেও জানানো হয়েছে।

Advt