মমতা সরকারের সাফল্য তুলে ধরা হবে আমেরিকায়, উদ্যোগ নিচ্ছে নবান্ন

রাজ্য সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন মূলক প্রকল্পের সাফল্য প্রবাসী বাঙালিদের সামনে তুলে ধরতে বিশেষ উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে। আগামী ১ থেকে ৩ জুলাই লাস ভেগাসে অনুষ্ঠিত হতে চলা উত্তর আমেরিকা বাঙালি সম্মেলনের মঞ্চে রাজ্য সরকারের তরফে একটি প্রদর্শনীর আয়োজন করা হচ্ছে বলে তথ্য সংস্কৃতি দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে। রাষ্ট্রপুঞ্জ সহ একাধিক আন্তর্জাতিক মঞ্চে পুরস্কৃত কন্যাশ্রীর পাশাপাশি রাজ্য সরকারের স্কচ পুরস্কার প্রাপ্ত বিভিন্ন প্রকল্পকে সেখানে তুলে ধরা হবে। বাংলার দুর্গাপুজোর ইউনেস্কো-র স্বীকৃতি সেই সাফল্যও তুলে ধরা হবে এই সম্মেলনে। প্রবাসী বাঙালিদের সামনে রাজ্যের সাফল্য তুলে ধরতে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকারের তথ্য ও সংস্কৃতি দফতরের উদ্যোগেই এই আয়োজন বলে জানা গিয়েছে। এর পাশাপাশি এই প্রদর্শনীতে সত্যজিৎ রায়ের বানানো কিছু সিনেমাও দেখানো হবে বলে জানা গিয়েছে। একইসঙ্গে আরও বেশ কিছু পুরনো সিনেমা যার প্রিন্ট নষ্ট হয়ে গিয়েছিল। সেগুলির ডিজিটাল প্রিন্টের ব্যবস্থা করে এই প্রদর্শনীতে তুলে ধরা হবে। শিল্প ক্ষেত্রে রাজ্য সরকারের সাফল্য তুলে ধরতে তাজপুর বন্দর, সিলিকন ভ্যালির মত গুরুত্বপূর্ণ প্রকল্পগুলিরও প্রদর্শন করা হবে। যার ফলে রাজ্যের পর্যটন মানচিত্রে আরও লগ্নির সম্ভাবনা তৈরি হবে বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল।

উল্লেখ্য, ২০১৩ সালের ১৪ আগস্ট রাজ্যে চালু হয়েছিল কন্যাশ্রী প্রকল্প। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্যোগে চালু হয়েছিল কন্যাশ্রী। এই প্রকল্প চালু হওয়ার পর রাজ্যে স্কুলছুট, নাবালিকা বিবাহের সংখ্যা যেমন কমেছে, তেমন কমেছে নারী পাচারও। কন্যাশ্রী প্রকল্পে সাফল্যের জন্য ২০১৭ সালে ইউএন পাবলিক সার্ভিস অ্যাওয়ার্ড পান মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এর আগে ইউনিসেফের আন্তর্জাতিক উন্নয়ন দফতর আয়োজিত ‘গার্ল সামিট’য়েও সেরা নির্বাচিত হয়েছিল রাজ্যের এই প্রকল্প। মিলেছিল মন্থন পুরস্কারও।

আরও পড়ুন- Earthquake:  আফগানিস্তানে ভয়াবহ ভূমিকম্পে মৃতের সংখ্যা ১০০০ ছাড়াল 

 

 

Previous articleIcc Ranking: প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে ভাল খেলার পুরস্কার পেলেন কার্তিক, অবনতি কোহলি-রোহিতের