ইলিশপ্রিয় বাঙালির জন্য সুখবর! বিধানসভায় নয়া উদ্যোগের ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর

ইলিশের জোগান বাড়াতে ইতিমধ্যেই খোকা ইলিশ ধরা নিষিদ্ধ করেছে সরকার। কিন্তু তা স্বত্বেও ছোট ইলিশ ধরা বন্ধ করা যাচ্ছে না। এই বিষয়টি নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, শুধু আইন করে খোকা ইলিশ ধরা বন্ধ করা যাবে না।

ইলিশপ্রিয় বাঙালি। ঝালে, ঝোলে, অম্বলে এক টুকরো ইলিশ হলে ভাতের পাতে আর কিছু চাই না। কিন্তু এই ইলিশ মাছের জন্য বাংলাদেশের উপর কিছুটা নির্ভর করতেই হয় এপার বাংলার মানুষদের। এবার রুপালি শস্যর জন্য বাংলাদেশের (Bangladesh) উপর নির্ভরতা কমাতে উদ্যোগী হচ্ছে রাজ্য সরকার। বৃহস্পতিবার, বিধানসভায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Bandopadhyay) জানিয়েছেন, এ রাজ্যেই ইলিশ উৎপাদনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। ডায়মন্ড হারবারে ইলিশ নিয়ে গবেষণা কেন্দ্র তৈরি করা হয়েছে। সেখানে প্রতিনিয়ত ইলিশের গতিবিধি নিয়ে গবেষণা চলছে। আগামী দিনে ইলিশের উৎপাদনে রাজ্য স্বনির্ভর হয়ে উঠবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।

ইলিশের জোগান বাড়াতে ইতিমধ্যেই খোকা ইলিশ ধরা নিষিদ্ধ করেছে সরকার। কিন্তু তা স্বত্বেও ছোট ইলিশ ধরা বন্ধ করা যাচ্ছে না। এই বিষয়টি নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, শুধু আইন করে খোকা ইলিশ ধরা বন্ধ করা যাবে না। মানুষকে বিষয়টি নিয়ে সচেতন করতে হবে।

রাজ্যে মাছ চাষের উপযুক্ত বহু জলাশয় রয়েছে। ওই সব পুকুর জলাশয়ে মাছ চাষ শুরু করার জন্য মমতা স্বনির্ভর গোষ্ঠী বা পাড়ার ক্লাবগুলিকে দায়িত্ব দেওয়ার জন্য বলেন। এবিষয়ে মৎস্যমন্ত্রীকে নির্দেশ দেন তিনি। এতে কর্মসংস্থানের পাশাপাশি বাজারে মাছের জোগানও বাড়ানো সম্ভব হবে বলে মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন।

Previous articleরাজ্যের লাগাতার দাবি, বাংলাকে আবাস যোজনায় ৮২০০ কোটি টাকা বরাদ্দ কেন্দ্রের