একটানা বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত কোচবিহার, হলুদ সংকেত মানসাই নদীতে

বুধবার মধ্যরাত থেকে বৃহস্পতিবার সকাল পর্যন্ত একটানা বজ্রবিদ্যুৎ সহ বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত কোচবিহার। বৃহস্পতিবার সকাল আটটা পর্যন্ত মাথাভাঙায় সবথেকে বেশি বৃষ্টিপাত হয়েছে। ইতিমধ্যেই মাথাভাঙার মানসাই নদীতে হলুদ সংকেত জারি করা হয়েছে। কোচবিহার জেলা সেচ দফতর সূত্রে খবর, তোর্সা সহ সাতটি নদীর জলস্তর বাড়ছে। যার মধ্যে রয়েছে রায়ডাক, মানসাই, ধরলা, কালজানি রয়েছে। 1580.60 মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে কোচবিহার জেলাজুড়ে। আগামী 24 ঘণ্টায় এই পরিমাণ আরো বাড়তে পারে বলে জানিয়েছে কোচবিহার জেলা প্রশাসন।
ইতিমধ্যেই কোচবিহার পুর এলাকার বিভিন্ন ওয়ার্ডে জল জমেছে। তোরসা নদীর জল বৃদ্ধির কারণে 18 নম্বর, 19 নম্বর ওয়ার্ড, টাকা গাছ, কারিশাল এলাকা জলমগ্ন। ডুবে গিয়েছে বেশ কিছু বাঁশের সাঁকো। যে কারণে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে টাকাগাছ এলাকায়। একই সাথে মানসাই নদীর জল বৃদ্ধির কারণে মাথাভাঙা মহাকুমার বিস্তীর্ণ এলাকায় বন্যা পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। কোচবিহার 1 নম্বর ব্লকের সুতুঙ্গা নদীতে জল বেড়েছে। তবে এখনও পর্যন্ত ভুটান থেকে জল ছাড়ার কোনো রকম খবর নেই।
কোচবিহারের জেলাশাসক পবন কাদিয়ান জানান, বজ্রবিদ্যুৎ সহ ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস আগে থেকেই ছিল। বৃষ্টির কারণে জেলার যে সমস্ত এলাকা জলমগ্ন হয়ে পড়েছে, সেই সমস্ত এলাকায় ইতিমধ্যেই জেলা প্রশাসনের প্রতিনিধিরা পৌঁছেছেন। সমগ্র পরিস্থিতির ওপরে জেলা প্রশাসন নজর রেখেছে।