খুলছে সিনেমার দরজা, তবে স্বস্তিতে নেই হল মালিকরা

কেন্দ্রীয় সরকারের নির্দেশে দেশজুড়ে শুরু হয়েছে আনলক ফেজ-ফাইভ। এই পর্বে বিধি-নিষেধ মেনে খোলা যেতে পারে সিনেমা হল। সাত মাস পর উৎসবের মরশুমে যা সিনে প্রেমীদের কাছে দারুণ খবর। ইতিমধ্যে টিকিট বুকিং শুরু হয়েছে। টিকিট পাওয়া যাচ্ছে “বুক মাই শো”তে।

তবে কড়া বিধি নিষেদের মধ্যেই একাধিক স্বাস্থ্যবিধির শর্ত মেনেই খুলতে হবে সিনেমা হল। যেখানে হলের আসনের ৫০ শতাংশের টিকিট বিক্রি করা যাবে। বজায় রাখতে হবে সামাজিক দূরত্ববিধি। আসন ও রো ছেড়ে ছেড়ে বসাতে হবে দর্শকদের। নিয়মিত হল স্যানিটাইজও করতে হবে।

তবে সিনে প্রেমীদের কাছে এই খবর খুশির হলেও হল মালিকরা যে স্বস্তিতে রয়েছেন তা কিন্তু এখনই বলা যাবে না।
কারণ, মাত্র ৫০ শতাংশ টিকিট বিক্রি হলে লাভের চেয়ে লোকসান হওয়ার সম্ভাবনাই বেশি। সেক্ষেত্রে বাড়াতে হবে টিকিটের দাম। আবার টিকিটের দাম বাড়লে এই পরিস্থিতিতে কতজন দর্শক হলমুখী হবেন, তা নিয়েও প্রশ্ন চিহ্ন দেখা দিয়েছে।

এদিকে জানা যাচ্ছে, কেন্দ্রীয় সরকার সিনেমা হল খোলার অনুমিত দিলেও কলকাতা ও রাজ্যের অধিকাংশ সিনেমা হলই বন্ধ থাকছে। বড় মাল্টিপ্লেক্সগুলো এখনই খুলছে না। কবে খুলবে সেটাও এখন নিশ্চিত নয়। তবে হল খোলার প্রস্তুতি হিসেবে স্যানিটাইজও শুরু হয়ে গিয়েছে।