আয়ুর্বেদের গবেষণায় গ্লোবাল সেন্টার ভারতে, উচ্ছ্বসিত মোদি

ভারতবাসীর কাছে এ এক খুশির খবর! দেশে আয়ুর্বেদের গবেষণায় গ্লোবাল সেন্টার খুলতে চলেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। হু’ প্রধান টেড্রস আধানম ঘেব্রিয়েসুসের এমন ঘোষণায় উচ্ছ্বসিত মোদি। প্রধানমন্ত্রী জানান, ভারত বিশ্বের মধ্যে ঔষধির কেন্দ্র হিসাবে উঠে এসেছে। এর আগে করোনা মোকাবিলায় আয়ুর্বেদ চিকিৎসা পদ্ধতি নিয়েও আলোচনা হয় প্রধানমন্ত্রী এবং হু প্রধানের মধ্যে। তারপরেই ভারতে তৈরি হবে আয়ুর্বেদ গবেষণার গ্লোবাল সেন্টার, এই সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছেন ঘেব্রিয়েসুস। আয়ুর্বেদ নিয়ে গবেষণার বিষয়ে নরেন্দ্র মোদিকে ধন্যবাদও জানিয়েছেন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান।

তবে কি করোনা মোকাবিলায় আয়ুর্বেদ চিকিৎসার ওপর ভরসা রাখছেন গবেষকরা?

কোভিড মোকাবিলায় পৃথিবীজুড়ে আয়ুর্বেদে ভরসা রাখা হয়েছে। যা নিয়ে গোটা বিশ্বে চলছে জোর গবেষণা। ভারতই বর্তমানে এ বিষয়ে পথ দেখাচ্ছে গোটা বিশ্বকে। সবদিক বিবেচনা করে আয়ুর্বেদ চিকিৎসায় গ্লোবাল সেন্টার তৈরি করছে হু । সেকথা ঘোষণা করেছেন হু’ প্রধান টেড্রস আধানম ঘেব্রিয়েসুস। ওই গ্লোবাল সেন্টারে আয়ুর্বেদের সমস্ত ওষুধ নিয়ে গবেষণা করা হবে বলে জানা গিয়েছে। কোনটা কতটা ঠিক, কতটা কার্যকারী তা পরীক্ষানিরীক্ষা করেও দেখা হবে। উল্লেখ্য, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ইতিমধ্যেই ব্রাজিল, ব্রিটেন-সহ বেশ কয়েকটি দেশে গুরুচি ও অশ্বগন্ধার ক্লিনিকাল ট্রায়ালের জন্য অনুমতি দিয়েছে। আর্থিক সহযোগিতাও করছে হু।

পাঁচ হাজার বছরের পুরনো শাস্ত্রের গবেষণায় গ্লোবাল সেন্টার তৈরি হওয়ার ঘোষণায় খুশি আয়ুর্বেদ বিশারদরা। খুশি পশ্চিমবঙ্গের গবেষকরাও। আয়ুর্বেদ পরিষদের সহ সভাপতি প্রদ্যোৎ বিকাশ মহাপাত্র বলেন, “এটা আয়ুর্বেদের ক্ষেত্রে ঐতিহাসিক। আমাদের দায়িত্ব অনেক বাড়ল।” শুধু বিদেশে নয় ভারতেও করোনা পর্ব শুরুর পর ২০০-র বেশি ওষুধের উপর ক্লিনিকাল ট্রায়ালের আবেদন জমা পড়েছে। তার মধ্যে ১২৫টি আয়ুষের অন্তর্ভুক্ত। বাঁকুড়ার পাত্রসায়রের আয়ুর্বেদ চিকিৎসক সুমিত শুরও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পদক্ষেপকে যুগান্তকারী বলে মনে করছেন। তাঁর মতে, “করোনা পর্ব শুরুর পর যেভাবে কেন্দ্রের আয়ুষ মন্ত্রক ধারাবাহিকভাবে প্রোটোকল তৈরি করে সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে দিয়েছে তা সত্যিই অভাবনীয়। আশা করা যায় আয়ুর্বেদ তার পূর্ণ মর্যাদা নিয়ে আবার ঘুরে দাঁড়াবে। আয়ুর্বেদিক চিকিৎসকরা আধুনিক চিকিৎসকদের মতো সম্মান পাবেন।”

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান টেড্রস আধানম ঘেব্রিয়েসুস প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সের সময় ঘোষণা করেন আয়ুর্বেদের গবেষণায় দেশে গ্লোবাল সেন্টার খোলার কথা। শুক্রবার জয়পুর এবং জামনগরে পঞ্চম আয়ুর্বদে দিবসে ভবিষ্যতের জন্য তৈরি দুটি আয়ুর্বেদ প্রতিষ্ঠানের উদ্বোধন করেন। জামনগরের ইনস্টিটিউট অফ টিচিং অ্যান্ড রিসার্চ ইন আয়ুর্বেদ এবং জয়পুরে ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ আয়ুর্বেদের উদ্বোধন করেন মোদি। এই দুটি কেন্দ্রই ভারতের দুটি প্রধান আয়ুর্বেদ কেন্দ্র হিসাবে অভিহিত।

আরও পড়ুন-১০ বছর ধরে ভিক্ষুক এক পুলিশ কর্তা, ডিএসপি সাহায্য করতে গিয়ে দেখলেন নিজেরই ব্যাচমেট