ফের ধর্ষণের ঘটনা যোগীরাজ্যে, অপমানে আত্মহত্যা নাবালিকার

বিজেপি শাসিত যোগীরাজ্য মহিলাদের জন্য যে কোনভাবেই সুরক্ষিত নয়, তা আরও একবার প্রতিফলিত হল। বুধবারের পর ফের বৃহস্পতিবারও প্রকাশ্যে এসেছে আরও এক নারকীয় ধর্ষণ কাণ্ডের ঘটনা।এবার ধর্ষণের শিকার হলেন ফতেপুরের এক দলিত নাবালিকা। শুধু তাই নয়, অপমানের গ্লানি সহ্য করতে না পেরে আত্মহননের পথ বেছে নেয় ১৫ বছরের ওই নাবালিকা। ন্যাক্কারজনক এই ঘটনায় আরও একবার প্রমাণিত হল, বিজেপি শাসিত উত্তরপ্রদেশে আইনশৃঙ্খলা বলতে কিছুই নেই।

আরও পড়ুন:বঙ্গ সফরের শুরুতেই হিঙ্গলগঞ্জে বিএসএফের অত্যাধুনিক ভাসমান আউটপোস্টের উদ্বোধন করলেন শাহ


পুলিশ সূত্রের খবর, মঙ্গলবার গভীর রাতে ফতেপুরের চাঁদপুর এলাকার বাসিন্দা ওই নাবালিকা পাশের জঙ্গলে শৌচকর্ম করতে যায়। এরপর দীর্ঘক্ষণ বাড়ি না ফেরায় শুরু হয় খোঁজাখুঁজি। রাতের দিকে ওই জঙ্গলে সংজ্ঞাহীন অবস্থায় পাওয়া যায় নির্যাতিতাকে। তাঁকে উদ্ধার করে স্থানীয় এক চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যাওয়া হয়। কিন্তু পরদিন সকালেই অপমানে কীটনাশক খায় সে। ফলে তাঁকে আর বাঁচানো যায়নি।


ফতেপুরের পুলিশ জানিয়েছে, মৃত্যুর আগে ওই নির্যাতিতা হাসপাতালের চিকিৎসকদের কাছে নিজের ধর্ষকের নাম বলে গিয়েছে । ইতিমধ্যেই নির্যাতিতার মৃত্যুকালীন বয়ান এবং তাঁর বাবা-মায়ের অভিযোগের ভিত্তিতে ধর্ষণের মামলা রুজু করেছে পুলিশ। অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে।


প্রসঙ্গত, একের পর এক ধর্ষণ, খুন, দলিতদের উপর অত্যাচারের ঘটনা একাধিকবার খবরের শিরোনামে উঠেছে। কিন্তু তাতেও কুলুপ এঁটেছে কেন্দ্র সরকার। উল্টে উত্তরপ্রদেশকেই বিজেপি শাসিত রাজ্যের আইকন হিসেবে দেশবাসীকে দেখাতে চেয়েছে তারা। প্রশ্ন হল, এই যদি বিজেপি শাসিত রাজ্যের আইকন রাজ্য হয়ে থাকে তবে বিজেপির অবস্থান ঠিক কোথায়?

Previous articleবঙ্গ সফরের শুরুতেই হিঙ্গলগঞ্জে বিএসএফের অত্যাধুনিক ভাসমান আউটপোস্টের উদ্বোধন করলেন শাহ