Corona Vaccine: করোনা টিকায় মাইলফলক! এবার আসছে দেশের MRNA ভ্যাকসিন

সেন্টার ফর সেলুলার অ্যান্ড মলিকিউলার বায়োলজি (CCMB)’ এবং ‘কাউন্সিল অব সায়েন্টিফিক অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল রিসার্চ (CSIR)’ এর যৌথ উদ্যোগে দেশীয় উপায়ে তৈরি প্রথম ‘বার্তাবাহক আরএনএ’ (এমআরএনএ) টিকা প্রযুক্তি তৈরির কাজ শেষ

করোনা (Corona)ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে এবার বড় সাফল্য ভারতের(India)। এসে গেল MRNA ভ্যাকসিন। টিকা-গবেষণায় আরও এক ধাপ এগিয়ে ‘বার্তাবাহক আরএনএ’ প্রযুক্তিতে সাফল্য ভারতের।

‘সেন্টার ফর সেলুলার অ্যান্ড মলিকিউলার বায়োলজি (CCMB)’ এবং ‘কাউন্সিল অব সায়েন্টিফিক অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল রিসার্চ (CSIR)’ এর যৌথ উদ্যোগে দেশীয় উপায়ে তৈরি প্রথম ‘বার্তাবাহক আরএনএ’ (এমআরএনএ) টিকা প্রযুক্তি তৈরির কাজ শেষ। বিশেষজ্ঞদের মতে করোনার মোকাবিলায় বিশ্বে এই মুহূর্তে যে সব টিকা তৈরির প্রযুক্তি রয়েছে, তার মধ্যে এমআরএনএ প্রযুক্তি শ্রেষ্ঠ।

এখন প্রশ্ন কী এই MRNA ভ্যাকসিন?

এই ধরনের ভ্যাকসিনে কোভিড ১৯ ভাইরাসের জেনেটিক উপাদানের একটি অংশও রয়েছে। জেনেটিক উপাদান, এটি Moderna এর ক্ষেত্রে RNA বহন করে, যেখানে Pfizer/BioNTech ভ্যাকসিন এক ধরনের ভাইরাল প্রোটিন বহন করে।

কীভাবে কাজ করে এই টিকা?

যখন এই ধরনের ভ্যাকসিন শরীরে প্রবেশ করে তখন শরীরের কোষগুলি ভ্যাকসিন থেকে জেনেটিক উপাদান ব্যবহার করে, আরও বিশেষ ধরনের ভাইরাল অ্যালার্ম প্রোটিন তৈরি করে, যা ইমিউন সিস্টেমকে লক্ষ্য করে প্রতিক্রিয়া জানায়।এই প্রতিক্রিয়া ইমিউন সিস্টেমের মেমরি তৈরি করে, তাই কোভিড-১৯ প্রবেশ করলে শরীর লড়াই করতে শুরু করে দেয়।

অতিমারি চলাকালীন এমআরএনএ টিকার কার্যকারিতা দেখেছে বিশ্ব। আমাদের দেশে ভারতে যে টিকা প্রযুক্তিটি তৈরি হয়েছে তা সম্পূর্ণ ভাবে দেশীয়। অটল ইনকিউবেশন সেন্টার-সিসিএমবি এই সংক্রান্ত গবেষণার কাজ এগিয়ে নিয়ে গিয়েছে।গবেষক দলের তরফ থেকে পরীক্ষামূলক ভাবে ইঁদুরের উপর দু’টি এমআরএনএ টিকা প্রয়োগের পর তাৎপর্যপূর্ণ প্রতিরোধ ক্ষমতা লক্ষ্য করা গেছে। বর্তমানে এমআরএনএ টিকা নিয়ে পরীক্ষা চলছে, পরবর্তীতে তা ক্লিনিকাল ট্রায়ালের জন্য পাঠানো হবে বলে জানা যায়।



Previous articleসম্পত্তির লোভে দাদাকে খুন! ধৃত ভাই, খোঁজ ভগ্নিপতির