প্রতিবাদীদের মুখ বন্ধ করতে যোগীরাজ্যে বুলডোজার, লকআপে লাঠির ঘা

যেভাবেই হোক প্রতিবাদীদের মুখ বন্ধ করতে বদ্ধপরিকর উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। তাই যোগীরাজ্যে প্রতিবাদীদের উপরে তাণ্ডব আর শেষ হচ্ছে না। বিজেপির অধুনা সাসপেন্ডেড মুখপাত্র নূপুর শর্মার বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে উত্তরপ্রদেশের সাহারানপুরে বিক্ষোভ-সমাবেশে অংশ নেওয়ার অভিযোগে বহু বাড়ি বুলডোজার দিয়ে গুঁড়িয়ে দেওয়া হল। গতকাল অর্থাৎ শনিবার পুরোপুরি সরকারি মদতে দু’জনের বাড়ি ভেঙে দেওয়া হয়েছিল বুলডোজার দিয়ে। রবিবার বুলডোজার-তাণ্ডব চলল প্রয়াগরাজে। ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়া হল জাভেদ মহম্মদের বাড়ি। পুলিশের দাবি এই জাভেদ মহম্মদের উদ্যোগে এবং নেতৃত্বেই নাকি শুক্রবার প্রয়াগরাজে নূপুরের মন্তব্যের প্রতিবাদে বিক্ষোভ দেখানো হয়েছিল। শুধু তাই নয় প্রয়াগরাজের বিভিন্ন জায়গায় পুলিশকে লক্ষ্য করে পাথর ছোড়ার ঘটনাটিতেও নাকি জাভেদের উস্কানি ছিল। প্রত্যক্ষদর্শীদের বিবরণ থেকে জানা গিয়েছে  বুলডোজার চালানোর আগের রাতে  প্রয়াগরাজ পুরসভা জাভেদের বাড়ির সামনে একটি নোটিস ঝুলিয়ে দেয়। তাতে দাবি করা হয়, জাভেদের বাড়ির প্রথম ও দ্বিতীয় তলে বেআইনি নির্মাণ হয়েছে। উত্তরপ্রদেশের পুলিশ পুরকর্তাদের সঙ্গে নিয়ে সহারানপুরেও দুটি বাড়ি ভেঙে দিয়েছে বলে খবর। এদিকে শুক্রবারের বিক্ষোভ এবং হিংসাত্মক ঘটনার জেরে ইতিমধ্যেই পুলিশ ৩০০ জনকে গ্রেফতার করেছে। প্রয়াগরাজে ৯১ জন, সহারানপুর থেকে ৭১ জন, হাথরস থেকে ৫১ জন গ্রেফতার হয়েছে।

 

Previous articleনিগ্রহের প্রতিবাদ করায় ছুরি নিয়ে হামলা, মহিলার মুখে ১১৮টি সেলাই !