মাতশ্রীতে ফিরে আসুন: গুয়াহাটিতে ‘উদ্ধবের দূত’কে আটক করল পুলিশ

‘মাতশ্রীতে ফিরে আসুন বিক্ষুব্ধরা’। এই দাবিতে বিধায়কদের বোঝাতে মহারাষ্ট্রের সাতরা থেকে গুয়াহাটি গিয়েছিলেন শিবসেনার এক নেতা। শুক্রবার তাঁকে আটক করল অসম পুলিশ(Assam)। জানা গিয়েছে, মহারাষ্ট্রের(Maharastra) শিবসেনার(Shiv Sena) জেলা সহসভাপতির দায়িত্বে থাকা ওই নেতার নাম সঞ্জয় ভোঁসলে(Sanjay Bhosale)। পুলিশের দাবি, স্পর্শকাতর এলাকায় সন্দেহজনকভাবে ঘোরাফেরা করার জন্য আটক করা হয়েছে তাঁকে।

মহারাষ্ট্রের জোট সরকারের অস্তিত্বের মূল চাবিকাঠি এখন অসমের গুয়াহাটির রেডিসন ব্লু হোটেলের অন্দরে। এখানেই বিক্ষুব্ধদের নেতা একনাথ শিন্ডের সঙ্গে বন্দি রয়েছেন মোট ৪০ জন বিধায়ক। ফলে ওই হোটেলের আশপাশের এলাকা কড়া নিরাপত্তায় মোড়া। এই জায়গাকে স্পর্শকাতর এলাকা বলে দাবি করে অসম পুলিশের তরফে আটক করা হল ওই শিবসেনা নেতাকে। জানা গিয়েছে, বিধায়কদের মাতশ্রীতে ফিরে আসার আবেদন জানিয়ে, বুকে একটি প্ল্যাকার্ড ঝুলিয়ে ওই হোটেলের চত্বরে ঘুরছিলেন তিনি। যার জেরেই তাঁকে আটক করা হয়। অসম পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, আইন অনুযায়ী ওই নেতার বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

এদিকে বর্তমানে অসম পুলিশের হেফাজতে থাকা ওই শিবসেনা নেতার দাবি, তিনি একনাথ শিন্ডেকে মাতশ্রীকে ফিরে আসার জন্য অনুরোধ জানাতে তিনি গুয়াহাটি এসেছিলেন। তাঁর বক্তব্য, শিবসেনা তার বিধায়কদের অনেককিছু দিয়েছে। তাঁদের উচিত মাতশ্রীতে ফিরে আসা। এদিকে সময় যত গড়াচ্ছে আশঙ্কার মেঘ তত বেড়ে উঠেছে মহারাষ্ট্রে। উদ্ধবের বিরুদ্ধে বিদ্রোহ ঘোষণা করা একনাথ দাবি করেছেন তাঁর সমর্থনে রয়েছে ৫০ জন বিধায়ক। যাদের মধ্যে ৪০ জন শিবসেনার।


Previous articleবৃষ্টির বিরাম নেই, জল বাড়ছে, অসমে বন্যায় মৃত্যু বেড়ে ১১০