Beauty Tips: গলায় ঘাড়ে দাগ নিয়ে চিন্তা, ঘরোয়া পদ্ধতিতে মুশকিল আসান !

শরীর ভালো রাখার পাশাপাশি নিয়মিত ত্বকের যত্ন (skin care) নেওয়া প্রয়োজন। আর তার জন্য দরকার প্রতিদিনের পরিচর্যা। কিন্তু ব্যস্ততার কারণে সেটা অনেকেই সেভাবে করে উঠতে পারেন না। যার ফল হিসেবে ত্বকের নানা সমস্যায় ভোগেন সব বয়সীরাই। এবার কিছু ঘরোয়া পদ্ধতি (Homemade remedy)ব্যবহার করে যদি এই সমস্যার চিরস্থায়ী থেকে সমাধান পেতে পারেন আপনি , তাহলে কেমন হয়? আজ বলি গলায়, ঘাড়ে কালো দাগের কথা। যা শুধু ত্বকের সমস্যা (skin problems) তৈরি করে তাই নয় বরং মাঝেমাঝে আপনাকে সামাজিক ভাবে অস্বস্তিতেও ফেলতে পারে।

গলায় বা ঘাড়ে কালো দাগ হওয়াটা অস্বাভাবিক কিছু নয়। বিশেষ করে যারা কলার দেওয়া জামা কাপড় পরেন তাঁদের এই সমস্যা হামেশাই দেখা যায়। সেক্ষেত্রে পুরুষ বা নারী আলাদা কিছু নেই। চিন্তা করবেন না, তবে এরকম কিছু লক্ষ্য করলে দ্রুত ব্যবস্থা নিন। আসলে গলা, ঘাড়ের চারপাশে ঘাম জমার কারণেই মূলত এটি হয়ে থাকে। আর সময়মত এর প্রতিকার না করলে বিষয়টা ক্রমাগত জটিল হয়ে যায়। অনেকেই আছেন গলার কালো দাগ ঢেকে রাখতে প্রতিদিনই কলার দেওয়া শার্ট পড়েন। এতে কিন্তু দাগ আরও গাঢ় হয়। তাই সহজেই কিছু ঘরোয়া পদ্ধতি ব্যবহার করে এর থেকে নিষ্কৃতি পেতে পারেন আপনি।
বাড়িতে নিশ্চয়ই কাঁচা দুধ আছে। সেটা ব্যবহার করুন। আসলে দুধে যে ল্যাকটিক অ্যাসিড (Lactic Acid)থাকে, এক্ষেত্রে তা দারুণ কাজ করে। কালো দাগ হয়েছে এমন জায়গায় কাঁচা দুধ লাগান, এতে ত্বকের কালচে দাগ ছোপ দ্রুত দূর হয়। বাড়িতে যদি অ্যালোভেরা জেল (Aloevera gel) থাকে, তাহলে শুধু মুখে নয় গলায় আর ঘাড়ে তা লাগিয়ে নিন রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে। অবশ্যই সানস্ক্রিন লোশন (Sunscreen Lotion) ব্যবহার করুন। শুধু মুখে নয়, হাত এবং গলাতেও লোশন মাখা জরুরি। শরীরের যে কোনও অংশে যদি কালো দাগ বা ছোপ দেখেন তাহলে অবশ্যই কাঁচা দুধ মাখুন আর আধঘণ্টা ঐ অবস্থায় থাকুন। দুধ শুকিয়ে গেলে ঠাণ্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। আর তফাতটা দেখুন নিজের চোখেই।


Previous articleএকই দেহে এইচআইভি- ক্যানসার! মারণ রোগ থেকে বেঁচে উঠলেন ৬৬ বছরের প্রৌঢ়