তেজস কিনতে চায় আমেরিকা, অস্ট্রেলিয়া-সহ বিভিন্ন দেশ! মালয়েশিয়াকে ১৮ যুদ্ধবিমান বিক্রির পথে ভারত

ভারতীয় যুদ্ধ বিমান তেজস (Tejas) কিনতে নাকি আগ্রহী আমেরিকাস অস্ট্রেলিয়া-সহ বিভিন্ন দেশ! শুক্রবার, এক বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে একথাই জানিয়েছে কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রক (Central Defence Ministry)। ইতিমধ্যেই মালয়েশিয়াকে (Malaysia) দেশীয় প্রযুক্তিতে তৈরি ১৮টি যুদ্ধ বিমান (Fighter Jet) বিক্রির সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র। তবে শুধু মালয়েশিয়াই নয়, ভারতের তৈরি ফাইটার জেট কিনতে চায় আর্জেন্টিনা, অস্ট্রেলিয়া, মিশর, আমেরিকা, ইন্দোনেশিয়া ও ফিলিপিন্সের মতো দেশও। এতদিন সামগ্রিক সরঞ্জামের ক্ষেত্রে বিদেশ-নির্ভর ছিল ভারত। কিন্তু সম্প্রতি এই প্রবণতা কাটিয়ে উঠেছে ভারত। ২০২৩ সালের মধ্যে এই যুদ্ধ বিমানগুলি তৈরি হয়ে যাবে বলে মনে করা হচ্ছে।

কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, গত বছর মালয়েশিয়া বায়ুসেনার ১৮টি তেজস বিমান কেনার প্রতি আগ্রহ দেখিয়েছিল। আর তারপরই ভারত ১৮ যুদ্ধবিমান মালয়েশিয়াকে বিক্রি করার সিদ্ধান্ত নেয়। ভারতের তৈরি হালকা ওজনের তেজস যুদ্ধবিমান মালয়েশিয়ার খুব পছন্দ হয়েছে। যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে বায়ুসেনার আধুনিকীকরণ করতে চাইছে মালয়েশিয়া। আর সেই কারণেই এমন সিদ্ধান্ত। তেজস যুদ্ধবিমান অত্যন্ত হালকা ওজনের হয় এবং অত্যন্ত শক্তিশালী ক্ষেপণাস্ত্র বয়ে নিয়ে যেতে সক্ষম। পাশাপাশি, শত্রুপক্ষের নজরের বাইরে থাকা অবস্থাতেও নির্দিষ্ট লক্ষ্যবস্তুর দিকে ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়তে পারে ভারতীয় এই যুদ্ধবিমান। প্রয়োজনে বিপক্ষের যুদ্ধবিমানকেও ধ্বংস করতে পারে তেজস।

গত বছরই ভারত সরকার হ্যাল-এর (Hindustan Aeronautics Limited) সঙ্গে ৮৩টি তেজস বিমান তৈরি করার জন্য ৬ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের একটি চুক্তি করেছে। আর তারপরই জোর কদমে কাজ শুরু হয়েছে বলে প্রতিরক্ষা মন্ত্রক জানিয়েছে।

আরও পড়ুন:পার্থর ব্যক্তিগত সচিব-OSD’র কম্পালসারি ওয়েটিং নোটিশ জারি নবান্নে

 

Previous articleপার্থর ব্যক্তিগত সচিব-OSD’র কম্পালসারি ওয়েটিং নোটিশ জারি নবান্নে