বেলপাহাড়িতে আদিবাসীদের গ্রামে মমতা, খোঁজ নিলেন মানুষের অভাব অভিযোগের

রাজ্যের প্রশাসনিক প্রধান হলেও মানুষের সঙ্গে ঘরের মেয়ের মতই মিশে পড়েন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়(Mamata Banerjee)। মঙ্গলবার ঝাড়গ্রাম(Jhargram) সফরে গিয়েও তার ব্যাতিক্রম হল না। বেলপাহাড়িতে(Belpahari) জনসভা সেরে আদিবাসী গ্রামে গিয়ে তাঁদের সঙ্গে বাড়ির মেয়ের মতো মিশে গেলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী(Chief Minister)। শুনলেন তাঁদের সমস্তরকম অভাব অভিযোগ। আশ্বস্ত করলেন সমস্যা সমাধানের।

বেলপাহাড়ির সভা থেকে ফেরার সময় এদিন মোট ৩ বার গাড়ি থেকে নামেন মুখ্যমন্ত্রী। শিলদায় নেমে তিনি সোজা ঢুকে যান আদিবাসীদের গ্রামে। রাজ্যের জনমুখী প্রকল্পগুলি সেখানকার মানুষ ঠিকঠাক করে পাচ্ছেন কিনা সে বিষয়ে বিস্তারিত খোঁজ নেন মুখ্যমন্ত্রী। শোনেন মানুষের অভাব অভিযোগ। সেখানেই একটি বাড়ির বারান্দায় শিশুকে কোলে নিয়ে বসেছিলেন কয়েকজন মহিলা। মুখ্যমন্ত্রী সেই শিশুকে কোলে তুলে নেন।

পাশাপাশি হাতের কাছে মুখ্যমন্ত্রীকে পেয়ে ১০০ দিনের টাকা, পাকা বাড়ি না পাওয়া এবং জলের সমস্যা নিয়েও অনেকে অভিযোগ করেন। সকলের অভিযোগ মন দিয়ে শুনে তাঁদের সমস্যা মেটানোর সাধ্যমত আস্বাস নেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পাশাপাশি বলেন, “২০২৪ সালের মধ্যে এই সব সমস্যা মিটে যাবে।” ১০০ দিনের টাকা এবং বাংলার বাড়ি প্রকল্পের টাকা যে কেন্দ্রের কারণে আটকে রয়েছে সে কথাও তাঁদের জানান মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

Previous articleপুর নিগমে এবার জোড়া ডেপুটি মেয়র, নয়া বিল আসছে বিধানসভায়