‘মরা মানুষ’ বেঁচে উঠলেন, এও কি সম্ভব?

‘মরা মানুষ’ ফিরলেন বাড়িতে। পরিবারের লোকজন তাঁকে দেখেই আঁতকে উঠলেন। প্রতিবেশীরা স্তম্ভিত। চাঞ্চল্য ছড়াল নৈহাটির সাহেব কলোনি মোড়ের পুর্ণানদ পল্লিতে। স্থানীয় বাসিন্দা ভূষণ পাল গত ১৬ জানুয়ারি মারা যান বলে খবর। গরিফা রামঘাট শ্মশানে তাঁকে দাহ করা হয়েছিল। এরপর তাঁর শ্রাদ্ধানুষ্ঠানও সম্পন্ন করা হয়। বৃহস্পতিবার হঠাৎই বাড়িতে ফেরেন তিনি।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, মানসিক ভারসাম্যহীন ভূষণ পালের আদি বাড়ি মেদিনীপুর। নৈহাটিতে তাঁর ভাইয়ের বাড়ি। সেখান থেকেই গত বছর ১০ নভেম্বর নিখোঁজ হয়ে যান তিনি। একমাসের মাথায় ১০ ডিসেম্বর পরিবারের পক্ষ থেকে নৈহাটি থানায় নিখোঁজ ডায়েরি করা হয়। এরপর পরিবারকে একটি মৃতদেহ শনাক্ত করতে বলা হয় নৈহাটি থানার পক্ষ থেকে। ওই দেহটি ভূষণ পালের বলে চিহ্নিত করে পরিবার দাহও করে দেয়। এদিকে ‘মৃত’ ব্যক্তি বাড়িতে ফেরায় হকচকিয়ে যান সকলে। বৃহস্পতিবার সন্ধেয় খবরটা চাউর হতেই বাড়ির লোক গেটে তালা লাগিয়ে দিয়েছেন।

আরও পড়ুন-পোলবায় পুলকার দুর্ঘটনায় চাঞ্ল্যকর তথ্য, গতি বাড়াতে ভয়ঙ্কর পদক্ষেপ চালকের!