অনুরাগ কাণ্ডে এবার প্রাক্তন ক্রিকেটার ইরফানের নাম জড়ালেন পায়েল

অনুরাগ কাশ্যপ মামলায় এবার প্রাক্তন ক্রিকেটার ইরফান পাঠানের নাম জড়ালেন অভিনেত্রী পায়েল ঘোষ। টুইটার হ্যান্ডেলে এই প্রসঙ্গে টেনে এনেছেন তিনি। তাঁর দাবি, ২০১৪ সালে অনুরাগ যখন তাঁকে নিজের বাড়িত ডেকে পাঠিয়েছিলেন সেই কথা জানতেন ইরফান। তবে ধর্ষণের বিষয়ে ইরফান কিছু জানেন না তাও লিখেছেন অভিনেত্রী। এর আগে অনুরাগের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য প্রধানমন্ত্রী এবং রাষ্ট্রপতির দ্বারস্থ হয়েছিলেন পায়েল।

নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে পায়েল লিখেছেন, ‘‘২০১৪ সালে অনুরাগ যখন ডেকে পাঠান, তখন তা জানিয়েছিলাম ইরফানকে। তবে ওঁকে ধর্ষণ করার বিষয় কিছু বলিনি। ইরফান শুধু ভালো বন্ধুই নয়, ওঁর পরিবারের সঙ্গে আমার ভালো সম্পর্ক রয়েছে।অথচ আমাকে ভালো বন্ধু বলে দাবি করলেও মুখ বন্ধ করে আছে।’’

পরিচালক অনুরাগ কাশ্যপের বিরুদ্ধে আগেই যৌন হেনস্থার অভিযোগ তুলেছিলেন তিনি। এমনকী পরিচালকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দকে চিঠি লিখেছিলেন পায়েল ঘোষ। শুধু তাই নয়, ‘মাফিয়া গ্যাং’য়ের হাতে খুন হতে পারেন বলে টুইটারে নরেন্দ্র মোদিকে ট্যাগ করেন তিনি। নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর রেশ ধরে এভাবেই আশঙ্কা প্রকাশ করে টুইট করেন পায়েল ঘোষ। একইসঙ্গে জাতীয় মহিলা কমিশনের চেয়ারপার্সন রেখা শর্মাকে ট্যাগ করেন।

প্রসঙ্গত, পরিচালক অনুরাগ কশ্যপের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থার অভিযোগ এনে একের পর এক কাণ্ড ঘটিয়ে চলেছেন অভিনেত্রী পায়েল ঘোষ। মহিলা কমিশনের সুপারিশেই তিনি ভরসোভা থানায় অনুরাগের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছিলেন। অনুরাগের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেওয়া হলে অনশনের হুমকি দিয়েছিলেন। তারপরই বলিউড পরিচালককে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেকে পাঠিয়েছিল মুম্বই পুলিশ। থানায় গিয়ে বয়ান দিয়েছিলেন অনুরাগ কশ্যপ। প্রায় আট ঘণ্টা জেরা করা হয় পরিচালককে। নিজের বিরুদ্ধে ওঠা যাবতীয় অভিযোগ অস্বীকার করেছেন অনুরাগ। সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, যে সময়ের কথা পায়েল বলছেন সেই সময় তিনি শ্রীলঙ্কায় ছিলেন।

আরও পড়ুন:২০ বছরের স্বপ্নপূরণ, হটসিটে বসে জানালেন কলকাতার রুণা সাহা