৬ ঘন্টা ট্রেনিং করে ২০ টাকার টিফিন! বিক্ষোভ ভোটকর্মীদের

সামনেই রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচন। ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গিয়েছে ভোটের প্রস্ততি। চলছে পোলিং অফিসারদের ট্রেনিং দেওয়ার কাজ। মালদা জেলারও বিভিন্ন স্কুলে স্কুলে শুরু হয়েছে পোলিং পার্সোনাল দের নিয়ে নির্বাচনের ট্রেনিং। কিন্তু ভোটকর্মীদের দাবি, ৬ ঘন্টা ট্রেনিং করার পর মিলছে মাত্র ২০ টাকার টিফিন! যেখানে নির্বাচন কমিশন থেকে লাঞ্চ বাবদ ধার্য করা হয়েছে ১৭০ টাকা। এই অভিযোগে বিক্ষোভ দেখান মালদহের অক্রমনী উচ্চ বিদ্যালয় এবং চাঁচল সিদ্ধেশ্বরী উচ্চ বিদ্যালয়ের ভোট কর্মীরা।

ভোটকর্মীদের অভিযোগ ৬ ঘন্টা ট্রেনিং করার পর দেওয়া হচ্ছে মাত্র ২০ টাকার টিফিন। টিফিনে রয়েছে, একটা ছোট কেক,একটা ছোট বিস্কুটের প্যাকেট আর একটা ছোট ফ্রুটি। এখন প্রশ্ন উঠছে ৬ ঘন্টা ট্রেনিং সেখানে এই সামান্য খাবার খেয়ে কি করে নির্বাচনের ট্রেনিং নেবেন নির্বাচনের কাজে যুক্ত হওয়া ভোট কর্মীরা? যেখানে ভারতের নির্বাচন কমিশন ভোট কর্মীদের প্রশিক্ষণ এ টিফিন খরচ বাবদ মাথাপিছু ১৭০ টাকা বরাদ্দ করেছে সেখানে কুড়ি টাকার নাম মাত্র টিফিন দিচ্ছে বলে অভিযোগ করেন ভোটের প্রশিক্ষণ নিতে আসা ভোট কর্মীরা।এই অভিযোগে মালদহের অক্রমনী উচ্চ বিদ্যালয় এবং চাঁচল সিদ্ধেশ্বরী উচ্চ বিদ্যালয় ভোট কর্মীরা বিক্ষোভ দেখান । বিক্ষোভের দুটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। সেখানে দেখা যাচ্ছে প্রশিক্ষণ নিতে আসা ভোট কর্মীরা আধিকারিকদের দেওয়া খাবার বয়কট করছেন। কোথাও আবার কেন পুরো টাকার খাবার দেওয়া হচ্ছে না এ নিয়েও প্রশ্ন তোলা হচ্ছে বলে দেখা যাচ্ছে ভিডিওতে।

আরও পড়ুন- অবশেষে পূর্ব বর্ধমান থেকে ধৃত বিজেপি নেতা রাকেশ সিং, গ্রেফতার দুই পুত্রও

Advt