পেট্রোলিয়াম পণ্যগুলিকে GST কাউন্সিলের আওতাধীন করার প্রস্তাব কেন্দ্রের

পেট্রোপণ্যের দাম ক্রমাগত বৃদ্ধি পাওয়ার ফলে চিন্তায় দেশবাসী। শুধুমাত্র ফেব্রুয়ারি মাসেই ১৭ বার দাম বেড়েছে পেট্রল-ডিজেলের। বেড়েছে গ্যাসের দামও। লাগাতার পেট্রোপণ্যের দাম বৃদ্ধির ফলে নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের দাম আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কায় দেশবাসী। কলকাতায় ১০০ টাকা ছুঁই ছুঁই পেট্রলের দাম। মুম্বইতে হু হু করে বেড়েছে অটো-ট্যাক্সির ভাড়া। কলকাতায় ট্যাক্সি ও অ্যাপ ক্যাবগুলিতে ন্যূনতম ভাড়া ৫০ টাকা করার দাবিতে গতকাল, সোমবার পথে নেমেছিলেন চালকরা। এই পরিস্থিতিতে মোদি সরকারের ওপর চাপ বাড়ছে ক্রমশ। সেই চাপ কমাতে এখন রাস্তা খুঁজছে কেন্দ্র। তাই এবার পেট্রোপণ্যগুলি গুডস অ্যান্ড সার্ভিস ট্যাক্স কাউন্সিলের আওতায় আনার প্রস্তাব দিল কেন্দ্রীয় সরকার।

মঙ্গলবার অসমে কেন্দ্রীয় পেট্রলিয়ামমন্ত্রী ধর্মেন্দ্র প্রধান বলেন, ”আমরা পেট্রোপণ্য GST-র আওতায় আনার প্রস্তাব দিয়েছি। তবে এই ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতে পারে গুডস অ্যান্ড সার্ভিস ট্যাক্স কাউন্সিল।” তিনি এদিন আরও জানান, পেট্রপণ্য GST-র আওতায় আনতে পারলে সাধারণ মানুষের লাভ হবে। দেশে পেট্রল, ডিজেলের দাম নিয়ন্ত্রণ সহজ হতে পারে।”পেট্রোলিয়াম এবং প্রাকৃতিক গ্যাস ও ইস্পাত দফতরের মন্ত্রী ধর্মেন্দ্র প্রধান এদিন আরও জানিয়েছেন, পেট্রল ও ডিজেলজাত পণ্য জিএসটির আওতায় এলে সাধারণ মানুষের লাভ হতে পারে। তবে এক্ষেত্রে রাজ্য সরকারগুলিকে ক্ষতির মুখে পড়তে হবে। কারণ, সেক্ষেত্রে পেট্রলজাত দ্রব্য থেকে রাজ্যগুলির লভ্যাংশ কমবে।

আরও পড়ুন-একই দিনে একই জেলায় কার্যত ‘মুখোমুখি’ কুণাল-শুভেন্দু

মঙ্গলবার মেট্রো শহরগুলিতে বেড়েছে পেট্রল-ডিজেলের দাম। দিল্লিতে প্রতি লিটার পেট্রলের দাম ৯০ টাকা ৮৩ পয়সা। ডিজেলের দাম ৮১ টাকা ৩২ পয়সা। কলকাতায় এক লিটার পেট্রল বিক্রি হচ্ছে ৯১ টাকা ১২ পয়সা। ডিজেল বিক্রি হচ্ছে ৮৪ টাকা ২০ পয়সায়। মুম্বইয়ে আজ পেট্রলের দাম ৯৭ টাকা ৩৪ পয়সা। ডিজেলের দাম ৮৮ টাকা ৪৪ পয়সা। চেন্নাইয়ে পেট্রলের দাম ৯২ টাকা ৯০ পয়সা। ডিজেলের দাম ৮৬ টাকা ৩১ পয়সা। ব্যাঙ্গালোরে এক লিটার পেট্রলের দাম ৯৩ টাকা ৬১ পয়সা। ডিজেলের দাম ৮৫ টাকা ৮৪ পয়সা।

Advt