লন্ডনে মায়ানমারের রাষ্ট্রদূতকে দূতাবাস থেকে বের করে দখল নিল সেনা

প্রতিবেশী রাজ্য মায়ানমারের(Myanmar) গণতান্ত্রিক সরকারকে সরিয়ে দেশের দখল নিয়েছে সেনাবাহিনী(army)। এই ঘটনার জেরে রীতিমতো উত্তপ্ত মায়ানমারের পরিস্থিতি। এবার সেই উত্তাপের আঁচ এসে পৌঁছল লন্ডনের(London) মাটিতে। জানা গেল লন্ডনে মায়ানমারের দূতাবাস দখল নিয়েছে সামরিক জুন্টার সমর্থক বার্মিজ কূটনীতিবিদরা। মায়ানমারের গণতান্ত্রিক সরকারের নিযুক্ত রাষ্ট্রদূতকে দূতাবাস থেকে বের করে দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ।

আরও পড়ুন:প্রথম ম‍্যাচ থেকেই জয় চাইছেন কোহলি, দল নিয়ে আশাবাদী বিরাট

বুধবার মায়ানমারের রাষ্ট্রদূত ক্যাও জয়ার মিন জানান, ‘লন্ডনের দূতাবাসে সেনা অভ্যুত্থান হয়েছে। জুন্টার সমর্থক কূটনীতিবিদরা দূতাবাস ভবনটি দখল নিয়েছে লন্ডনের।’ ওই আধিকারিক আরো জানান, ‘সরাসরি সরকারের থেকেই নির্দেশ পাঠানো হয়েছে সমস্যা সমাধানের জন্য আমি ব্রিটিশ সরকারের কাছে আবেদন জানাচ্ছি।’ উল্লেখ্য মায়ানমারের সেনাশাসনের বিরুদ্ধে সরব হয়ে আং সান সু কি’র মুক্তির দাবি তুলেছিলেন লন্ডনে নিযুক্ত মায়ানমারের রাষ্ট্রদূত মিন। এরপরই সেনার বিষ নজরে পড়েন তিনি। সরকার নিযুক্ত ওই রাষ্ট্রদূতের পরিবর্তে চিট কিন নামের অন্য এক জুন্টাপন্থী কূটনীতিবিদকে রাষ্ট্রদূত হিসেবে নিযুক্ত করতে চাইছে সেনাবাহিনী। বিদেশের মাটিতে এহেন অস্বস্তিকর ঘটনার জেরে রীতিমতো চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে লন্ডনের কূটনৈতিক মহলে।

Advt