শুভেন্দু-সুকান্তদের পাশে নিয়ে শাহ বোঝালেন BSF চালাবে BJP

‘দুদিনের বঙ্গ সফরে এসে আজ, বৃহস্পতিবার সকালেই রাজ্যে পা রাখেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। একুশের বিধানসভা নির্বাচনের পর এটাই অমিত শাহের প্রথম রাজ্য সফর। আজ প্রথমদিন মূলত সীমান্তরক্ষী বাহিনী অর্থাৎ বিএসএফের একাধিক অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছেন তিনি।

তবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর প্রথমদিনের কর্মসূচিতেই একাধিক বিতর্ক তৈরি হয়েছে। এদিন দমদম বিমানবন্দরে শাহকে স্বাগত জানান কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী নিশীথ প্রামানিক, বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী এবং বিজেপি রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার।

এরা তিনজনেই স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে একই কপ্টারে প্রথমে হিঙ্গলগঞ্জ এবং পরে বনগাঁর হরিদাসপুরে বিএসএফের অনুষ্ঠানে যোগ দেন। নিশীথ প্রামানিক কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী, তিনি অমিত শাহের এই সরকারি কর্মসূচিতে সঙ্গে থাকতেই পারেন। কিন্তু রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী কেন্দ্রীয় সরকারের কোনও অংশ নয়, তিনি কিভাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে একই কপ্টারে সওয়ার হলেন? প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে সংশ্লিষ্ট মহলে। সুকান্ত মজুমদার সাংসদ হলেও তিনি রাজ্য বিজেপির সভাপতি, তিনিও বা কীকরে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বিএসএফের অনুষ্ঠানে যোগ দিলেন? কারণ, শুভেন্দু ও সুকান্ত, দুজনেই বিজেপির প্রতিনিধি। আর যদি শুভেন্দু যদি বিজেপির প্রতিনিধি না হয়ে নিজেকে বিধায়ককে বা বিরোধী দলনেতা দাবি করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সরকারি কর্মসূচিতে যোগ দেওয়ার যুক্তি দেখান, তাহলে যুক্তরাষ্ট্রীয় পরিকাঠামোয় রাজ্য সরকারের কোনও প্রতিনিধিকে কেন সঙ্গে নিলেন না স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী?

তাহলে কি অমিত শাহের এই সফরে সরকারি কর্মসূচিতে দলতন্ত্র কায়েম করতে চাইছে বিজেপি? এখন থেকে সীমান্তরক্ষী বাহিনী অর্থাৎ বিএসএফ পরিচালনা করবে বিজেপি? সংশ্লিষ্ট মহলে ইতিমধ্যেই প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে, এবার মোদি-শাহ জুটি বিএসএফকে গৈরিকীকরণ করার পথে হাঁটছে।

 

 

Previous articleKIFF এ আমন্ত্রণ-টানাপোড়েন: মিমির অভিযোগের পাল্টা রাজ