একদিনের অসম সফরে কামাখ্যা মন্দিরে পুজো দেবেন অভিষেক, উদ্বোধন করবেন দলীয় দফতরের

এবার বিজেপি শাসিত অসমে পাড়ি দিচ্ছেন অভিষেক। লোকসভা ভোটের দু'বছর আগে থেকে অসমের মাটিতে সংগঠনকে মজবুত করার লক্ষ্য তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদকের

একুশের বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূলের অভূতপূর্ব জয়ের পর দলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পেয়েছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। এরপর থেকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে ও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সেনাপতিত্বে চব্বিশের লোকসভা নির্বাচনের আগে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে দলীয় সংগঠন বাড়ানোই লক্ষ্য তৃণমূলের। ত্রিপুরা, মেঘালয়ের পর এবার তৃণমূলের লক্ষ্য উত্তর-পূর্ব ভারতের আরেক গুরুত্বপূর্ণ রাজ্য অসম।

এবার বিজেপি শাসিত অসমে পাড়ি দিচ্ছেন অভিষেক। লোকসভা ভোটের দু’বছর আগে থেকে অসমের মাটিতে সংগঠনকে মজবুত করার লক্ষ্য তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদকের। সংগঠন এবং জোটের সম্ভাবনা নিয়ে আলোচনা সারতে আগামিকাল, বুধবার একদিনের সফরে অসম যাচ্ছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন:ইউটিউবারদের ঝেঁটিয়ে বিদায়! অনাহারে-অনাদরে ‘পাগলিনী’ রাণু 

তৃণমূলের তরফে অভিষেকের অসম সফরের সূচি ঘোষণা করা হয়েছে। সকালের বিমানে অসমে পৌছে অভিষেক বেলা ১২.১৫মিনিটে প্রথমে বিখ্যাত কামাখ্যা মন্দিরে পুজো দেবেন। ঠিক একঘন্টা পর দুপুর ১.১৫মিনিটে আইটিএ অডিটোরিয়ামে অসমের দলীয় নেতৃত্ব ও পার্টি কর্মীদের সঙ্গে সাংগঠনিক বৈঠক করবেন। রিপুন বোরাকে অসম তৃণমূলের সভাপতি করার পর এবার ঘর গোছানোর কাজ শুরু করতে চায় তৃণমূল। এই বৈঠক থেকেই রিপুন বোরা, সুস্মিতা দেবদের সেই কৌশল বলে দিতে পারেন অভিষেক। সবশেষে ৩.৩৫ মিনিটে অসম তৃণমূলের দলীয় কার্যালয়ের উদ্বোধন করবেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। এবং ওইদিনই কলকাতায় ফিরে আসবেন।

প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালে অসমে ক্ষমতা হারানোর পর উত্তর-পূর্বের এই বড় রাজ্যটিতে ক্রমশ ক্ষয়িষ্ণু হয়েছে কংগ্রেস। গত বিধানসভা নির্বাচনে এআইইউডিএফের সঙ্গে জোট করেও বিজেপিকে চ্যালেঞ্জ জানাতে পারেনি তারা। বর্তমানে বিরোধী কংগ্রেস বাংলার মতোই অসমেও নিশ্চিহ্ন হওয়ার পথে। সেই জায়গা থেকে হিমন্ত বিশ্বশর্মাদের চ্যালেঞ্জ জানাতে তৈরি হচ্ছে তৃণমূল। অভিষেক ঘুরে আসার পরই অসমে বিভিন্ন পার্টি থেকে তৃণমূলে যোগদান করানোর পর্ব শুরু হবে বলে আগেই জানিয়ে ছিলেন সাংসদ সুস্মিতা দেব।




Previous articleSharmila Tagore: প্রায় এক যুগ পর অভিনয়ে ফিরছেন ‘স্বপ্ন কি রানি’