কালীঘাট, দক্ষিণেশ্বর থেকে তারাপীঠ, কালীপুজোর দিন কী কী ভোগ হয় জানেন ?

মায়ের পুজো থেকে শুরু করে মায়ের ভোগ সবেতেই থাকে বিশেষত্ব । বিশেষ করে কালীপুজোর সময় মায়ের যে ভোগ হয়, তা অন্যান্য পুজোর থেকে বেশ কিছুটা আলাদা ।

কালীপুজো নিয়ে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি চলছে জোরকদমে । আলোর মালায় সেজে উঠছে শহর । মায়ের আরাধনায় রাজ্যের বিভিন্ন কালীমন্দিরগুলিতে প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে । পুজোর দিন কালীঘাট, দক্ষিণেশ্বর, তারাপীঠ মন্দিরে ভক্তদের ভিড় উপচে পড়ে । মায়ের পুজো থেকে শুরু করে মায়ের ভোগ সবেতেই থাকে বিশেষত্ব । বিশেষ করে কালীপুজোর সময় মায়ের যে ভোগ হয়, তা অন্যান্য পুজোর থেকে বেশ কিছুটা আলাদা ।

জেনে নিন কালীঘাট, দক্ষিণেশ্বর থেকে তারাপীঠ কোথায় কী ভোগ দেওয়া হয় মাকে –

কালীঘাট- সতীর একান্নপীঠের অন্যতম এই কালীঘাট । এখানে মায়ের ভোগে থাকে আমিষ পদ । সকালে মাকে নিবেদন করা হয় ঘিয়ের পোলাও । সেইসঙ্গে থাকে বেগুনভাজা, পটলভাজা, কপি ভাজা, আলু ও কাঁচকলা ভাজা,শাকভাজা,শুক্তো,ঘি ডাল, মাছের কালিয়া, পাঁঠার মাংস ও চালের পায়েস । রাতে মাকে নিরামিষ ভোগ দেওয়া হয় । সেখানে থাকে লুচি, বেগুনভাজা, আলু ভাজা, দুধ, ছানার সন্দেশ আর রাজভোগ ।

দক্ষিণেশ্বর- দক্ষিণেশ্বরে মা ভবতারিণীর পুজো হয় । ঠাকুর রামকৃষ্ণ দেবের দেখানো পথেই পুজো হয়ে আসছে এখানে । মায়ের ভোগে থাকে সাদাভাত, ঘি, পাঁচরকমের ভাজা, শুক্তো, তরকারি, পাঁচরকমের মাছের পদ, চাটনি, পায়েস ও মিষ্টি । সেইসঙ্গে দেওয়া হয় ডাবের জল ।

তারাপীঠ – তারাপীঠ একান্ন পীঠের অন্যতম । এখানে মা তারার ভোগে থাকে আমিষ পদ । মাকে স্নান করিয়ে বেনারসি ও গয়না পরানো হয় । দুবেলা অন্নভোগ দেওয়া হয় এদিন। সকালে মাকে নিবেদন করা হয় খিচুরি, পোলাও, পাঁচ রকমের ভাজা, তিন রকমের তরকারি, বলির মাংস, পোড়ানো শোল মাছ, চাটনি, পায়েস ও মিষ্টি । সন্ধ্যাবেলায় লুচি ও মিষ্টি দেওয়া হয় মা কালীকে ।

কোথাও আবার নিরামিষ ভোগও দেওয়া হয় মা কালীকে । এদিন, বাঙালিদের ঘরে লক্ষ্মীপুজো করা হয় । মা লক্ষ্মীকে কোথাও নিরামিষ খিচুড়ি, তরকারি কিংবা আমিষ মাছের পদও নিবেদন করা হয় ।

Previous articleGold Silver rate: ধনতেরাসে সস্তা হল সোনা ! লাগাতার ২ সপ্তাহ সোনার দাম নিম্নমুখী