দুর্গোৎসবে সরকারি প্যাকেজ

দুর্গোৎসব উপলক্ষ্যে একগুচ্ছ পরিষেবা নিয়ে আনছে রাজ্য পরিবহন দফতর। সপ্তমী থেকে নবমীতে কলকাতা ও আশপাশের বিখ্যাত পুজো পরিক্রমা থাকছে সরকারি প্যাকেজে। জেলাভিত্তিক কিছু বিখ্যাত পুজোয় থাকছে পশ্চিমবঙ্গ পরিবহণ নিগমের প্যাকেজে।

কলকাতার পুজো পরিক্রমায় থাকছে ট্রাম বা জলপথে ভ্রমণ। এসি বাসে মহানগরীর বনেদি বাড়ির পুজো দেখার জন্য জন প্রতি খরচ পড়বে 1600 টাকা। তবে 5 থেকে 10 বছরের শিশুদের জন্য ভাড়া পড়বে 1100 টাকা। তবে, বাঙালীর পুজোতে জড়িয়ে পেটপুজোও। সেই কথা মাথায় রেখেই জলখাবার, মধ্যাহ্নভোজ থেকে থাকছে বিকেলের টিফিনও। সঙ্গে চা,কফি।

জলপথ ও স্থলপথে উত্তর কলকাতার বিখ্যাত পুজোগুলি দেখা যাবে। সেক্ষেত্রে জনপ্রতি খরচ পড়বে 500 টাকা। মিলেনিয়াম পার্ক থেকে লঞ্চে হাওড়া জেটি হয়ে আহিরিটোলা ঘাটে পৌঁছনো যাবে। সেখান থেকে বাসে করে উত্তর কলকাতার বনেদি বাড়ি ও বারোয়ারি পুজো দেখা যাবে। বাগবাজার ঘাট থেকে হাওড়া জেটি হয়ে আনুমানিক 5 ঘণ্টার এই পরিক্রমা শেষ হবে মিলেনিয়াম পার্কে। সেই প্যাকেজেও থাকছে স্ন্যাকস ও চায়ের ব্যবস্থা।

থাকছে ট্রামে পুজো পরিক্রমার ব্যবস্থাও। জনপ্রতি খরচ পড়বে 500 টাকা। এসপ্ল্যানেড থেকে হেরিটেজ ট্রামে সুবোধ মল্লিক স্কোয়ার হয়ে বউবাজার, কলেজ স্ট্রিট হয়ে শ্যামবাজার ডিপো পর্যন্ত পুজো পরিক্রমা করা যাবে। এখানেও চা ও স্ন্যাকসের বন্দোবস্ত থাকছে।

এছাড়া, পশ্চিমবঙ্গ পরিবহণ নিগমের যে কোনও শহর ও শহরতলি বাস ও ভেসেলে এক টিকিটে সারা দিন বেড়াতে পারেন। কলকাতা ছাড়াও মাত্র 100 টাকার টিকিটে পূর্বের হাওড়া স্টেশন থেকে পশ্চিমে নিউটাউন, উত্তরে বারাসত-বারাকপুর থেকে দক্ষিণের ঠাকুরপুকুর পর্যন্ত যেতে পারবেন। আর ভেসেলের ক্ষেত্রে আড়িয়াদহ থেকে মিলেনিয়াম পার্ক জেটির মধ্যে এই টিকিট প্রযোজ্য হবে।

কলকাতার পুজোর ভিড় ছেড়ে একটু গ্রাম বাংলার পুজো দেখতে চাইলে তার ব্যবস্থাও আছে। পুজোর পরে মন খারাপের প্রয়োজন নেই। গঙ্গায় বিসর্জন দর্শনের জন্য 1400 টাকা ভাড়ায় দশমীর দিন বিকেল 5 টা থেকে 9 টার মধ্যে কলকাতা ও হাওড়ার বিভিন্ন ঘাটে যাওয়া যাবে। সাংবাদিক বৈঠক করে এই প্যাকেজের ঘোষণা করেন পরিবহনমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী।