ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড অন্তর্ঘাত না দুর্ঘটনা, কারণ খুঁজতে নামছে রেল

রেলভবনে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের (fire incident) পিছনে কোনও অন্তর্ঘাত রয়েছে নাকি এটি নিছকই দুর্ঘটনা তা খতিয়ে দেখতে উচ্চপর্যায়ের তদন্ত কমিটি গঠন করল রেল (rail)। রেলের ওই তদন্তকারী দলে চারজন উচ্চপদস্থ অফিসার থাকবেন বলে জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল। রেলের তরফে প্রকাশিত এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, উচ্চপর্যায়ের এই তদন্তকারী দলকে নেতৃত্ব দেবেন রেলের মুখ্য নিরাপত্তা আধিকারিক জয়দীপ গুপ্তা। ঘটনাস্থল পরিদর্শনে সোমবার রাতে গিয়েছিলেন পূর্ব রেলের জেনারেল ম্যানেজার মনোজ জোশী। উচ্চপর্যায়ের তদন্তের পাশাপাশি তিনি জানিয়েছেন, রাজ্য সরকার যদি কোনও তদন্ত শুরু করে তাহলে রেলের তরফে সব রকম সাহায্য করা হবে।

আরও পড়ুন-রেলের তরফ থেকে সবরকম সাহায্যের আশ্বাস দিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে বার্তা রেলমন্ত্রীর

এদিকে নিউ কয়লাঘাটের রেলভবনে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে রেলের বিরুদ্ধে অসহযোগিতার অভিযোগ তুলেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রেলের দায়িত্বজ্ঞানহীনতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন মমতা। পাল্টা রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল টুইট করে জানান, জেনারেল ম্যানেজার-সহ রেলের আধিকারিকরা ঘটনাস্থলে ছিলেন। রাজ্য সরকারের আধিকারিকদের সঙ্গে উদ্ধারকাজে হাত লাগিয়েছেন বলে দাবি করেন গোয়েল। যদিও মুখ্যমন্ত্রী রাতে স্ট্র্যান্ড রোডে পৌঁছে অভিযোগ করেন, রেলের কোনও আধিকারিক ঘটনাস্থলে আসেননি। মমতা বলেন, এটা পুরোটাই রেলের জায়গা। কিন্তু এখনও তাঁরা কেউ আসেননি। আমাদের দমকলের পক্ষ থেকে একটি মানচিত্র চাওয়া হয়েছিল। কিন্তু সেটাও দেওয়া হয়নি। দুর্ঘটনা নিয়ে রাজনীতি করতে চাই না। মর্মান্তিক দুর্ঘটনা।যদিও মুখ্যমন্ত্রীর অভিযোগ খারিজ করে রেলমন্ত্রী দাবি করেছেন, পূর্ব রেলের জেনারেল ম্যানেজার-সহ আধিকারিকরা এসে উদ্ধারকাজে রাজ্য সরকারের আধিকারিকদের সাহায্য করেছেন। এইখানে রাজ্য-কেন্দ্র সংঘাত তৈরি হয়েছে। রেলমন্ত্রী আরও জানিয়েছেন, ঘটনা নিয়ে উচ্চপর্যায়ের তদন্ত করা হবে।

Advt