মোদির রাজ্যে বিষমদ খেয়ে মৃত ১০,গুরুতর অসুস্থ ২০

খোদ প্রধানমন্ত্রীর রাজ্য, গুজরাটে এ বার বিষমদ কাণ্ডে মৃত ১০। অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি আরও ২০ জন। এদের মধ্যে বেশ কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করছেন চিকিৎসকরা। রাজ্যে মদ্যপান ও মদ বিক্রি বন্ধ থাকা সত্ত্বেও কী করে এহেন ঘটনা ঘটল, তা নিয়ে শুরু হয়েছে রাজনৈতিক বিতর্ক। বিরোধী দলের অভিযোগ শাসক দল, বিজেপির প্রশয়েই গুজরাতে চোলাই মদের রমরমা বাড়ছে।

আরও পড়ুন:রাজস্থানে দূষিত জল খেয়ে মৃত ৩, অসুস্থ ১২

পুলিশ সূত্রের খবর, গুজরাটের বোটাদ জেলার বরভলার কয়েকটিও গ্রামে রবিবার থেকে বিষমদে ধারাবাহিকভাবে মৃত্যু ও অসুস্থ হওয়ার ঘটনা ঘটেছে। বিভিন্ন হাসপাতালে প্রায় ২০ জনের চিকিৎসা চলছে। বেশিরভাগ অসুস্থ ব্যক্তি ভাবনগরের স্যার তখতসিংজি হাসপাতালে ভর্তি আছেন। কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

গোটা ঘটনায় প্রাথমিকভাবে বেশ কয়েকজনকে আটক করেছে পুলিশ।বোতাড়ের পুলিশ সুপার জানিয়েছেন, ‘প্রয়োজন পড়লে খুনের ধারা যোগ করবে পুলিশ। অভিযুক্তদের গ্রেফতার করতে আমাদের সঙ্গে তদন্তে নেমেছে গুজরাটের সন্ত্রাস দমন শাখা এবং আমেদাবাদ ক্রাইম ব্রাঞ্চ’।

প্রসঙ্গত, বহু বছর ধরেই গুজরাতে মদ্যপান এবং মদ বিক্রি নিষিদ্ধ করেছে গুজরাট প্রশাসন। কিন্তু তারপরেও কী করে এই ধরণের ঘটনা ঘটে? তাও আবার খোদ প্রধানমন্ত্রী রাজ্যে? এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসার পরই উত্তাল গুজরাটের রাজ্য রাজনীতি। কংগ্রেস সাফ জানিয়েছে,শাসক দল বিজেপির প্রশ্রয়ে ক্রমশ রাজ্যে চোলাই মদের ব্যবসা বাড়ছে। একই অভিযোগ করেছে আম আদমি পার্টিও।









Previous articleBreakfast Sports : ব্রেকফাস্ট স্পোর্টস